বুধবার, ১৯ ডিসেম্বর, ২০১৮
সংবাদ শিরোনাম

সেনা নির্যাতনে নিহত রমেল চাকমাকে ইউপিডিএফের সশস্ত্র সদস্য আখ্যায়িত করে

কালের কন্ঠে প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদে পত্রিকার কপি পোড়ালো এলাকাবাসী  

রাঙ্গামাটি : আজ ২৩ এপ্রিল প্রকাশিত দৈনিক কালের কন্ঠ পত্রিকায় ছাত্র নেতা এইচএসসি পরীক্ষার্থী রমেল চাকমাকে ইউপিডিএফের সশস্ত্র শাখার সদস্য অ্যাখ্যায়িত করে পরিবেশিত সংবাদের তীব্র প্রতিবাদ করে  পত্রিকার কপি পুড়িয়ে ফেলেছে বিক্ষুদ্ধ জনতা।

“ইউপিডিএফের সশস্ত্র এক সদস্যের মৃত্যুকে কেন্দ্র করে পাহড়কে অশান্ত করার চেষ্টা” শিরোনামে কাজী হাফিজ এর লেখায় কালের কন্ঠ পত্রিকায় পরিবেশিত সংবাদে অসন্তোষ ও ক্ষোভ প্রকাশ করে পত্রিকার কপি পুড়িয়ে ফেলেছেন নান্যাচর উপজেলাসহ রাঙ্গামাটি জেলার বিক্ষুদ্ধ এলাকাবাসী।

এলাকাবাসীরা অভিযোগ ক18110667_1768996093430934_673542956_nরে বলেন, কালের কন্ঠের মত স্বনামধন্য জাতীয় দৈনিক পত্রিকায় এ ধরনে মিথ্যা সংবাদ পরিবেশন মোটেই কাম্য নয়।ছাত্র নেতা রমেল চাকমার মৃত্যুতে সোস্যাল মিডিয়ায় নিন্দা ও প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে। এখন পার্বত্যবাসী সহ সারা বাংলাদেশের জনগণ জেনে গেছেন তিনি সেনাবাহিনীর অমানুষিক নির্যাতনে চমেক হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ১৯এপ্রিল মারা যান।

তারা আরো বলেন, ছাত্র নেতা রমেল চাকমাকে শারিরিক নির্যাতন করে হত্যায় অভিযুক্ত মেজর তানভীর, নান্যাচর জোন কমান্ডার বাহলুল আলম সহ জড়িত সেনা সদস্যদের বিরুদ্ধে শাস্তির দাবিতে পার্বত্য চট্টগ্রামে সর্বত্র গণআন্দোলন সৃষ্টি হয়েছে। এই গণআন্দোলনকে ভিন্নখাতে প্রবাহিত করার জন্য অভিযুক্ত সেনাবাহিনী সদস্যরা সাংবাদিক কাজী হাফিজ এর সাথে যোগসাজশ করে এ ধরনের মিথ্যা ও বানোয়াট সংবাদ পরিবেশন করিয়েছে বলে মন্তব্য করেন। এ মিথ্যা সংবাদ পরিবেশনে সম্পাদকও অনেকটা দায়ী উল্লেখ করে আগামীতে কারো দ্বারা সম্পাদককে প্রভাবিত হয়ে মিথ্যা ও বানোয়াট সংবাদ পরিবেশ না করার আহব্বান জানান।

এ ব্যপারে ইউপিডিএফের রাঙ্গামাটি সমন্বয়ক সচল চাকমার সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ইউপিডিএফ হচ্ছে গণতান্ত্রিক রাজনৈতিক দল। আমরা গণতান্ত্রিক ধারায় জুম্ম জনতার অধিকার আদায়ে আন্দোলন করছি। আমাদের কোন সশস্ত্র শাখা নেই। কাজেই রমেল চাকমা ছাত্র রাজনীতির সাথে যুক্ত থাকলেও সশস্ত্র শাখার সদস্য হওয়ার প্রশ্নই ওঠে না।

—————————————

সিএইচটি নিউজ ডটকম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.