নান্যাচরে মুখোশ-সংস্কার কর্তৃক সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যানকে অপহরণ, ইউপিডিএফ’র নিন্দা

0
0

নান্যাচর : রাঙামাটির নান্যাচর উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান প্রীতিময় চাকমা গতকাল বৃহস্পতিবার (১৯ জুলাই) সন্ধ্যায় নিজ বাড়ি থেকে নব্য মুখোশ ও সংস্কারবাদী জেএসএস সন্ত্রাসী কর্তৃক অপহরণের শিকার হয়েছেন।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, গতকাল সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় নব্য মুখোশ বাহিনীর রণয় ও দাজ্জে (উজ্জ্বল কান্তি চাকমা)-এর নেতৃত্বে একদল মুখোশ ও সংস্কারবাদী সন্ত্রাসী নান্যাচরের মরাচেঙ্গী মুখ গ্রামের (চেয়ারম্যান পাড়া) নিজ বাড়ি থেকে অস্ত্রের মুখে প্রীতিময় চাকমাকে অপহরণ করে নিয়ে যায়। আজ শুক্রবার দুপুর পর্যন্ত তাকে ছেড়ে দেওয়া হয়নি।

ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ) রাঙামাটি জেলা ইউনিটের প্রধান সংগঠক শান্তিদেব চাকমা আজ (শুক্রবার) সংবাদ মাধ্যমে দেওয়া এক বিবৃতিতে উক্ত অপহরণের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ এবং অবিলম্বে তাকে উদ্ধারে তড়িৎ ও কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন।

বিবৃতিতে ইউপিডিএফ নেতা অপহরণকারীদের কঠোর ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন এবং ঘটনার বর্ণনা দিয়ে বলেন, গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে সেনা-সৃষ্ট নব্য মুখোশ বাহিনী ও জেএসএস সংস্কারবাদীর সশস্ত্র দুর্বৃত্তরা তাকে অপহরণের পর ইঞ্জিন চালিত বোটে করে সন্ত্রাসী-আস্তানা মহালছড়ি উপজেলার মুবাছড়ির দিকে নিয়ে যায়।

শান্তিদেব চাকমা পার্বত্য চট্টগ্রামে অশান্তি সৃষ্টির জন্য সেনা-সংস্কার-নব্যমুখোশ ত্রয়ীকে দায়ি করে বলেন, গত বছর ১৫ নভেম্বর নব্য মুখোশ বাহিনী নামে একটি সন্ত্রাসী গোষ্ঠীকে জন্ম দেয়ার পর থেকেই বিভিন্ন এলাকায় খুন, অপহরণ, মুক্তিপণ আদায় ও চাঁদাবাজির ঘটনা অবিরামভাবে ঘটে চলেছে।

তিনি শাসকগোষ্ঠীর বিরুদ্ধে সংস্কারবাদী ও নব্য মুখোশ বাহিনীকে দিয়ে ইউপিডিএফ-এর নেতৃত্বে পরিচালিত গণতান্ত্রিক গণআন্দোলন দমনের অভিযোগ করেন এবং অবিলম্বে জুম্ম দিয়ে জুম্ম ধ্বংসের জঘন্য ষড়যন্ত্র বন্ধের দাবি জানান।

সম্প্রতি নব্য মুখোশ বাহিনী ও সংস্কারবাদী জেএসএস থেকে স্বাভাবিক জীবনে ফিরে কয়েকজন সদস্য কর্তৃক গোপন তথ্য ফাঁস করে দেয়ার ঘটনা উল্লেখ করে ইউপিডিএফ নেতা বিষ্ময় প্রকাশ করে বলেন, দেশের সংবিধান ও আইনের বলে প্রতিষ্ঠিত বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর কতিপয় কর্মকর্তা কীভাবে নিরীহ লোকজন খুন করতে নব্য মুখোশ বাহিনী ও সংস্কারবাদীদের কাছে অস্ত্র ও গোলাবারুদ সরবরাহ করতে পারে!

তিনি অবিলম্বে কতিপয় সেনা কর্মকর্তা কর্তৃক সন্ত্রাসীদের অস্ত্র ও গোলাবারুদ সরবরাহের ঘটনার নিরপেক্ষ তদন্ত ও এর সাথে জড়িতদের কঠোর শাস্তি প্রদানের দাবি জানান।
——————-
সিএইচটিনিউজ ডটকম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.