পার্বতীপুরে সাঁন্তাল গ্রামে হামলার প্রতিবাদে চট্টগ্রামে পিসিপি-যুব ফোরামের মানববন্ধন

0
0

সিএইচটিনিউজ.কম
ctg human chain prgm,2চট্টগ্রাম: দিনাজপুরের পার্বতীপুরে সাঁন্তাল গ্রামে হামলা, বাড়িতে অগ্নিসংযোগ, ভাংচুর, ব্যাপক লুটপাটের প্র্রতিবাদে এবং সান্তাল জনগোষ্ঠীর ভূমি রক্ষার ন্যায়সঙ্গত দাবির প্রতি সংহতি জানিয়ে চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সামনে মানববন্ধন করেছে বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ(পিসিপি) ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম চট্টগ্রাম মহানগর শাখা।

রবিবার (২৫ জানুয়ারি) বিকালে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের চট্টগ্রাম মহানগর শাখার সভাপতি জিকু মারমার সভাপতিত্বে ও পিসিপি চট্টগ্রাম মহানগর শাখার সভাপতি বিপুল চাকমার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সম্পাদক এসিংমং মারমা, চট্টগ্রাম মহানগর শাখার সাধারণ সম্পাদক বিজয় চাকমা ও পিসিপি চট্টগাম মহানগর শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক রমেশ চাকমা।

মানববন্ধনে বক্তারা সান্তাল গ্রামে হামলার নিন্দা জানিয়ে বলেন, সরকার পার্বত্য চট্টগ্রামসহ দেশের বিভিন্ন জায়গায় বসবাসরত ভিন্ন ভাষাভাষী সংখ্যালঘু জাতিসত্তাসমূহের নিরাপত্তা দিতে সম্পূর্ণ ব্যর্থ। সংবিধানের বিতর্কিত পঞ্চদশ সংশোধনীর মাধ্যমে বাঙালি জাতীয়তা চাপিয়ে দেওয়ার কারণে উগ্রসাম্প্রদায়িক গোষ্ঠীগুলো বাঙালি ভিন্ন সংখ্যালঘু জাতিসমূহের ওপর এ ধরনের বর্বর হামলা চালাচ্ছে।

বক্তারা সাঁন্তাল জনগণের ভূমি রক্ষার ন্যায়সঙ্গত আন্দোলন ও দাবির প্রতি সমর্থন জানিয়ে বলেন, পাহাড় এবং সমতলের সংখ্যালঘু জাতিসমূহকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে ভূমি ও অস্তিত্ব রক্ষার আন্দোলন বেগবান করতে হবে।

বক্তারা অবিলম্বে সাঁন্তাল গ্রামে হামলা, বাড়িতে অগ্নিসংযোগ, ভাংচুর ও লুটপাটে জড়িতদের গ্রেফতার ও শাস্তি, আটক সান্তালদের নিঃশর্ত মুক্তি ও তাদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মামলা প্রত্যাহার এবং সাঁন্তাল জনগণের জমি জবরদখল বন্ধ করার দাবি জানান।

উল্লেখ্য, গতকাল শনিবার সকালে জমির মালিকানা নিয়ে বিরোধের জের ধরে বাঙালিরা পার্বতীপুরের হাবিবপুর চিড়াকুঠা সান্তাল গ্রামে হামলা চালায়। এতে ১০টি বাড়িতে আগ্নিসংযোগ, কমপক্ষে ৪৫টি বাড়ি ভাংচুর, সোনাদানা ও টাকাপয়সা ছাড়াও গরু-ছাগল, ধান-চাল, সেচযন্ত্র, থালাবাসনসহ অন্যান্য মালামাল লুট করে নিয়ে যায়। এমনকি কয়েকটি বাড়ির আঙিনা থেকে নলকূপ খুলে নিয়ে যায়।
—————

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.