শনিবার, ১৬ ফেব্রুয়ারি, ২০১৯
সংবাদ শিরোনাম

পার্বত্য চট্টগ্রাম নারী সংঘের চট্টগ্রাম মহানগর শাখার ২য় কাউন্সিল অনুষ্ঠিত

চট্টগ্রাম : ‘নারীর সম্ভ্রম রক্ষার্থে সোচ্চার হোন’ এই স্লোগানকে সামনে রেখে ও ‘পাহাড় এবং সমতলে নারীর ওপর যৌন নির্যাতন ও সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে নারী সমাজ ঐক্যবদ্ধ হোন’ এই আহ্বানে গতকাল শুক্রবার (১ ফেব্রুয়ারি) নগরীর কদম মোবারক হল রুমে পার্বত্য চট্টগ্রাম নারী সংঘের ২য় কাউন্সিল সফলভাবে সম্পন্ন হয়েছে।

সভা শুরুতে নিপীড়িত মানুষের মুক্তির সনদ পূর্ণস্বায়ত্তশাসন আদায়ের আন্দোলন-সংগ্রাম করতে গিয়ে যারা শহীদ হয়েছেন তাঁদের প্রতি সম্মান জানিয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়।

পার্বত্য চট্টগ্রাম নারী সংঘের সাবেক সভাপতি রুপা চাকমা’র সভাপতিত্বে এবং হিল উইমেন্স ফেডারেশন(এইচডব্লিউএফ) এর নেত্রী রিতা চাকমা’র সঞ্চালনায় সম্মেলনে বক্তব্য রাখেন হিল উইমেন্স ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক মন্টি চাকমা, ইউনাইটেড ওয়ার্কাস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট(ইউডব্লিউডিএফ) মহানগর শাখার সভাপতি বিজয় চাকমা ও বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ(পিসিপি) চবি শাখার সহ-তথ্য প্রচার সম্পাদক ত্রিরত্ন চাকমা।

সম্মেলনে বক্তারা পার্বত্য চট্টগ্রামে সেনা-সেটলার কর্তৃক নারী নির্যাতনের ভয়াবহ চিত্র তুলে ধরে বলেন, শুধুমাত্র বিগত বছরে(২০১৮) ২৩ জন পাহাড়ি নারী ধর্ষণ ও যৌন নির্যাতনের শিকার হয়েছে। এবং প্রায় প্রতিদিন কোথাও না কোথাও বিভিন্ন হেনস্থা ও যৌন হয়রানির শিকার হতে হচ্ছে পাহাড়ি নারীদের।

পাহাড় ও সমতলে নারীর উপর যৌন নির্যাতনের চিত্র তুলে ধরে বক্তারা বলেন, পাহাড়ি নারীরা আজ ঘরে-বাইরে কোথাও নিরাপদ নয়। রাস্তা-ঘাটে চলতে-ফিরতে তাদের ইভটিজিংসহ নানা মানসিক নির্যাতনের শিকার হতে হয়। পুরুষতান্ত্রিক সমাজে নারীদের উপর পুরুষের প্রভুত্ব ও ভোগ্যপণ্যের মতো নিকৃষ্ট দৃষ্টিভঙ্গিই নারীর প্রতি পুরুষের বর্তমান নির্যাতনের কারণ বলে বক্তারা বলেন। এর জন্য দরকার নারীদের সংঘবদ্ধ প্রতিরোধ বলেই বক্তারা মন্তব্য করেন।

এছাড়া বক্তারা আরো বলেন, যুগে যুগে নারীরা পুরুষের পাশাপাশি সমাজ বিনির্মাণে ভূমিকা রেখে আসছে। নারীদের এই ভূমিকার স্বীকৃতি পাওয়া যায় বিদ্রোহী কবি কাজী নজরুলের কবিতায়, ‘পৃথিবীতে যাহা কিছু মহান সৃষ্টি চির কল্যাণকর, অর্ধেক তার করিয়াছে নারী, অর্ধেক তার নর।’ কাজেই নারীদের মোটেই অবহেলা করার উপায় নেই। সমাজ, দেশ ও জাতি গঠনে নারীদের বৃহৎ অবদানের স্বীকৃতি নেপোলিয়ন দিয়ে গেছেন বিখ্যাত উক্তির মাধ্যমে, ‘আমাকে একটি শিক্ষিত মা দাও, আমি একটি শিক্ষিত জাতি উপহার দেবো।’

এরপর সম্মেলনে উপস্থিত প্রতিনিধি ও পর্যবেক্ষকদের সম্মতিক্রমে রেশমি মারমাকে সভাপতি, সোনালি চাকমাকে সাধারণ সম্পাদক এবং রিনু চাকমাকে সাংগঠনিক সম্পাদক করে ১৯ সদস্য বিশিষ্ট নগর শাখার কমিটি গঠন করা হয়। নতুন কমিটির সদস্যদের শপথ বাক্য পাঠ করান হিল উইমেন্স ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক মন্টি চাকমা।
—————
সিএইচটি নিউজ ডটকম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.