পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের নান্যাচর থানা শাখার কাউন্সিল সম্পন্ন : ১৭ সদস্য বিশিষ্ট নতুন কমিটি গঠিত

0
1

নান্যাচর(রাঙামাটি) প্রতিনিধি
সিএইচটিনিউজ.কম
বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের নান্যাচর থানা শাখারকাউন্সিল সম্পন্ন হয়েছে৷ কাউন্সিল উপলক্ষে আজ ২১ ডিসেম্বর ২০১০, সকাল ১১টায় নান্যাচর কলেজ মাঠে এক ছাত্র সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

পাহাড়ি ছাত্র পরিষদেরনান্যাচর থানা শাখার বিদায়ী সভাপতি বিলাস চাকমার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত উক্তসমাবেশে বক্তব্য রাখেন পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদকথুইক্যসিং মারমা, গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের কেন্দ্রীয় সদস্য সচিব মাইকেলচাকমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশন-এর রাঙামাটি জেলা শাখার আহ্বায়ক যুথিকাচাকমা, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের নান্যাচর কলেজ শাখার সভাপতি রিপন চাকমা, কলেজশাখার প্রাক্তন সভাপতি বিনয়ন চাকমা, গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের নান্যাচরথানা শাখার সভাপতি প্রিয় লাল চাকমা ও পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের কাউখালী থানাশাখার সভাপতি মিকলিন চাকমা৷ সমাবেশে বিভিন্ন স্কুল থেকে দুই শর মতোছাত্র-ছাত্রী যোগ দেন।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে গণতান্ত্রিক আন্দোলনকেদমিয়ে রাখার জন্য নানা ষড়যন্ত্র-চক্রান্ত চলছে। গত ১৫ ডিসেম্বর খাগড়াছড়িতেপাহাড়ি ছাত্র পরিষদের শান্তিপূর্ণ র‌্যালীতে পুলিশ হামলা চালিয়ে তা আবারওপ্রমাণিত হয়েছে৷ বর্তমান আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন মহাজোট সরকার দমন-পীড়নচালিয়ে আন্দোলন দমিয়ে রাখার চেষ্টা চালাচ্ছে৷ সরকারের এইষড়যন্ত্র-চক্রান্তের বিরুদ্ধে ছাত্র সমাজকে রুখে দাঁড়াতে হবে।বক্তারা আরো বলেন, নান্যাচরের প্রশাসন সেনাবাহিনীর ইচ্ছামাফিকপরিচালিত হচ্ছে। সেনারা যা বলে প্রশাসন তা মানতে বাধ্য হয়। গোটা পার্বত্যচট্টগ্রামেও একই অবস্থা পরিলক্ষিত হচ্ছে। একটি গণতান্ত্রিক দেশে এ অবস্থাকিছুতেই চলতে পারে না৷

বক্তারা গত আগস্ট মাসে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ ও হিল উইমেন্স ফেডারেশনেরনেতা-কর্মীদের সেনাবাহিনী কর্তৃক আটকের ঘটনা উল্লেখ করে বলেন, গত ২৩ আগস্টও ২৯ আগস্ট সেনাবাহিনী বিনা কারণে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ ও হিল উইমেন্সফেডারেশনের ৭ নেতা-কর্মীকে জোরপূর্বক ইউপিডিএফ অফিস থেকে ধরে নিয়ে মিথ্যামামলা দায়ের করে জেল হাজতে পাঠায়৷ কিন্তু সে মামলা আজও প্রত্যাহার করাহয়নি।বক্তারা অবিলম্বে নেতা-কর্মীদের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলাপ্রত্যাহার, গণতান্ত্রিক কর্মসূচিতে বাধা প্রদান বন্ধ করা, পাহাড়ি ছাত্রপরিষদের শিক্ষা সংক্রান্ত ৫দফা দাবি বাস্তবায়ন, পার্বত্য চট্টগ্রামকেস্বায়ত্তশাসিত অঞ্চল ঘোষণা ও জাতিসত্তার সাংবিধানিক স্বীকৃতির দাবি জানান।

সমাবেশ শেষে বিঘ্ন খীসাকে সভাপতি, রিপন চাকমাকে সাধারণ সম্পাদক ওস্বপন চাকমাকে সাংগঠনিক সম্পাদক নির্বাচিত করে ১৭ সদস্য বিশিষ্ট নান্যাচরথানা কমিটি গঠন করা হয়।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.