মাটিরাঙ্গা তাইন্দং-এ এক পাহাড়ি নারী ধর্ষিত : বাড়িতে লুটপাট

0
1

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি, সিএইচটিনিউজ.কম
খাগড়াছড়ি জেলার মাটিরাঙ্গা উপজেলার তাইন্দং ইউনিয়নের ৯ নং ওয়ার্ডের পোড়াবাড়ি গ্রামে নিজ বাড়িতে বাঙালি কর্তৃক এক পাহাড়ি নারী ধর্ষণের শিকার হয়েছেন এবং বাড়ির জিনিসপত্র লুটপাট করে নিয়ে গেছে দুর্বৃত্তরা। ধর্ষণের শিকার নারীর নাম মালারুং ত্রিপুরা (৩২), স্বামী নিত্য রঞ্জন ত্রিপুরাগত ২৬ জানুয়ারী ২০১১ দিবাগত রাত ২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে

জানা গেছে, বুধবার রাত ২টার দিকে একই ইউনিয়নের মুসলিম পাড়া গ্রামের সুরুজ মিঞা, বাবুল মিঞা ও তার ছোট ভাইসহ ৮/৯ জনের একটি সন্ত্রাসী দল পোড়াবাড়ী গ্রামের নিত্যরঞ্জন ত্রিপুরার বাড়ীতে ডাকাতি করতে যায়৷ সন্ত্রাসীরা প্রথমে বাড়ীর উঠানে শুকিয়ে রাখা হলুদ বস্তায় ভরতে থাকে৷ বাড়ীর মালিক নিত্য রঞ্জন ত্রিপুরা টের পেয়ে টর্চ লাইট জ্বালিয়ে চোর-চোর বলে চিত্‍কার করতে থাকলে ডাকাতি দলের চারজন ঘরে ঢুকে নিত্যরঞ্জন ত্রিপুরাকে বেদম মারধর করে বাক্সরে চাবি দিতে বাধ্য করে এবং স্ত্রী মালারুং ত্রিপুরা (৩২)কে সুরুজ মিয়া ও বাবুল মিয়া বলপূর্বক ঘরের এক কোণে টেনে নিয়ে গিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণ করে৷ এ সময় অপর দুইজন নিত্য রঞ্জন ত্রিপুরাকে চেপে ধরে রাখে

সন্ত্রাসীরা পাঁচ মন শুকনো হলুদ, নগদ ১৬ হাজারটাকা, স্বর্ণালঙ্কার, কাপড় ও জাতীয় পরিচয়পত্র ভর্তি একটি ট্রাঙ্ক নিয়ে গেছে বলে ধর্ষিতার স্বামী নিত্য রঞ্জন ত্রিপুরা জানান

মালারুং ত্রিপুরা জানান, তাদের ঘরটি পাড়া থেকে এক মাইলের মতো দূরে হওয়ায় এবং দুর্বৃত্তরা তাদের মুখ চেপে রাখায় কোনো প্রকার চিত্‍কার করতে পারেননি

এ ব্যাপারে ২৮ জানুয়ারী ২০১১ শুক্রবার দুপুরে মাটিরাঙা থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০৩ (সংশোধনী) এর ৯/৩ ধারা তত্‍সহ ৩৯৪ ধারায় মামলা দায়ের করা হয়েছে৷ মামলা নং-০৫, তারিখঃ ২৮/০১/২০১১ইং ৷

হিল উইমেন্স ফেডারেশনের খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সভাপতি রিকু চাকমা ও সাধারণ সম্পাদক মাদ্রী চাকমা এক বিবৃতিতে এ ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ সহ অবিলম্বে ধর্ষণকারীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি ও যথোপযুক্ত ক্ষতি পূরণের দাবি জানিয়েছেন


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.