মানিকছড়িতে পিসিপি ও যুব ফোরামের বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ

0
1

সিএইচটিনিউজ.কম
Manikchari protest rally
মানিকছড়ি (খাগড়াছড়ি): রাঙামাটির নানিয়াচর উপজেলাধীন বগাছড়িতে পাহাড়ি গ্রামে অগ্নিসংযোগকারী সেটলারদের গ্রেফতার, কাপ্তাইয়ে উমাচিং মারমার ধর্ষণ ও হত্যাকারী নিজাম সহ তাইন্দংয়ে স্কুলছাত্রী ধর্ষণের সাথে জড়িত বাদশা মিয়াকে গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে খাগড়াছড়ির মানিকছড়িতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ(পিসিপি) ও গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম মানিকছড়ি থানা শাখা।

জনগণের মধ্যে সংগ্রামী মৈত্রী জোরদার করুন, বিভেদ বিভ্রান্তি সৃষ্টিকারী দুর্বৃত্তদের চিহ্নিত করুন” এই শ্লোগানে বুধবার (২৪ ডিসেম্বর) সকাল ১০টায় মানিকছড়ি উপজেলার জামতলা থেকে বিক্ষোভ মিছিলটি বের হয়ে গচ্ছাবিল এলাকায় মিলিত হয়ে প্রতিবাদে সমাবেশ করে। এতে মানিকছড়ি এলাকার বিভিন্ন জায়গা থেকে সহস্রাধিক নারী-পুরুষ অংশগ্রহণ করেন।

সমাবেশে পিসিপি’র অমল ত্রিপুরার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের খাগড়াছড়ি জেলা শাখার আহ্বায়ক জিকো ত্রিপুরা, পিসিপি খাগড়াছড়ি জেলা শাখার অর্থ সম্পাদক সুনীল ত্রিপুরা, রামগড়ের পাতাছড়া ইউনিয়নের মেম্বার মানেন্দ্র চাকমা, পিসিপি’র খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সাবেক সভাপতি ও ইউপিডিএফ সংগঠক আপ্রুসি মারমা ও হিল উইমেন্স ফেডারেশনের খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সদস্য এন্টি চাকমা প্রমুখ।

বক্তারা বলেন, সরকার একদিকে পার্বত্য চট্টগ্রামে আন্তঃসাম্প্রদায়িক সংঘাত বাঁধিয়ে দিয়ে পরিস্থিতি ঘোলাটে করতে চাচ্ছে, অপরদিকে সেটলার বাঙালিদের দিয়ে পাহাড়িদের উপর হামলা, বাড়িঘরে অগ্নিসংযোগ, নারী ধর্ষণ ও হত্যার ঘটনা সংঘটিত করেছে। ২০১১ সালের ১৭ এপ্রিল মানিকছড়ি ও রামগড়ের শনখোলা পাড়ায় হামলা করেও রেহাই পাওয়ায় একই কায়দায় সেটলার বাঙালিরা গত ১৬ ডিসেম্বর বিজয় দিবসে রাঙামাটির বগাছড়িতে পাহাড়িদের ঘরবাড়ি জ্বালিয়ে পুড়িয়ে ছারখার করে দিয়েছে। এই সরকার চুক্তি বাস্তবায়ন ও উন্নয়নের আশার বাণী শুনিয়ে পাহাড়ি জনগণকে নিশ্চিহ্ন করে দেয়ার চক্রান্তে লিপ্ত রয়েছে।

বক্তারা আরো বলেন, মানিকছড়িতে পাহাড়িদের অধিকাংশ জায়গা এখন সেটলার বাঙালিদের দখলে চলে গেছে। এ অবস্থা চলতে থাকলে আগামী কয়েক বছরের মধ্যে এখানে পাহাড়িদের অস্তিত্ব খুঁজেও পাওয়া যাবে না। অবশিষ্ট যেসব জায়গা-জমি রয়েছে সেগুলোও বেদখল করে পাহাড়িদের চিরতরে উচ্ছেদ করার লক্ষ্যেই নানা কুটকৌশল খাটিয়ে দালাল-সুবিধাবাদীদের দিয়ে সরকার পাহাড়ি জনগণের মধ্যে আন্তসাম্প্রদায়িক বিভেদ সৃষ্টি করে ফায়দা লুটার চেষ্টা করছে। সরকারের এই চক্রান্ত থেকে সবাইকে সজাগ ও সতর্ক থাকতে হবে।

বক্তারা সরকারের ‘ভাগ করে শাসন করা’র নীতির ফাঁদে পা না দিয়ে জনগণের মধ্যে সংগ্রামী মৈত্রী জোরদার করার আহ্বান জানান।

সমাবেশ থেকে বক্তারা অবিলম্বে বগাছড়িতে পাহাড়ি গ্রামে হামলা ও অগ্নিসংযোগের সাথে জড়িত সেটলারদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি, কাপ্তাইয়ে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের পর হত্যার সাথে জড়িত নিজামসহ তাইন্দংয়ে স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণকারী মো: বাদশা মিয়াকে গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি ও সকল ক্ষতিগ্রস্তদের যথাযথ ক্ষতিপূরণ ও নিরাপত্তা বিধানের দাবি জানান।
—————

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.