শোক সংবাদ

আটক পিসিপি’র কেন্দ্রীয় নেতা বিপুল চাকমার মায়ের মৃত্যু

0
1

shokখাগড়াছড়ি প্রতিনিধি।।  নিজের চোখের সামনে থেকে পুলিশ কর্তৃক ছেলেকে আটক করার মানসিক যন্ত্রণা সইতে না পেরে অবশেষে মারা গেলেন বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ(পিসিপি)-এর কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক বিপুল চাকমার অসুস্থ মা নিরুদেবী চাকমা(৪৫)। আজ সোমবার (২৪ অক্টোবর) ভোর রাতের দিকে (রাত ২:৫৩টা) খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালে তাঁর মৃত্যু হয়।

উল্লেখ্য, গতকাল রবিবার (২৩ অক্টোবর) সকাল ৮টার দিকে বিপুল চাকমা তাঁর দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ মা’কে উন্নত চিকিৎসার জন্য চট্টগ্রামে নিয়ে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে পানছড়ি থানার সামনে পুলিশ তাদের বহনকারী মাইক্রোবাসটি আটকায় এবং চরম অমানবিকভাবে অসুস্থ মায়ের কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়ে বিপুল চাকমাকে আটক করে নিয়ে যায়। ছেলেকে আটক করতে দেখে নিরুদেবী চাকমা তৎক্ষণাত আরো বেশি অসুস্থ হয়ে পড়েন। গুরুতর অসুস্থ হওয়ার কারণে তাকে আর চট্টগ্রামে নিয়ে যাওয়া সম্ভব  হয়নি। ভর্তি করা হয় খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালে। সেখানেই আজ ভোররাত তিনটার দিকে তিনি মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন। তাঁর এই মৃত্যুর ফলে বিপুল চাকমা মা’কে এক নজর দেখার ও চিকিৎসা সেবা দেয়ার আর কোন সুযোগ পেলেন না। কারণ তিনি বর্তমানে কারাগারে আটক অবস্থায় রয়েছেন।

মৃত নিরুদেবী চাকমার (স্বামী-সুনয়ন চাকমা) দুই ছেলে-মেয়ের মধ্যে বিপুল চাকমা বড়। তাঁর ছোট মেয়েটিরও কয়েক বছর আগে বিয়ে হয়েছে।

খাগড়াছড়ি সদর হাসপাতালের দায়িত্ব ডাক্তার মোঃ খোরশেদ তাঁর মৃত্যুর সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। তিনি দীর্ঘদিন ধরে কোলন সমস্যাজনিত কঠিন অসুখে ভুগছিলেন।

আজ সকালে তাঁর মরদেহ পানছড়ি উপজেলার বুদ্ধরাম পাড়ার নিজ বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

এদিকে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ তাঁর এই অকাল মৃত্যুর জন্য পুলিশের অমানবিক আচরণকে দায়ী করে অবিলম্বে পিসিপি নেতা বিপুল চাকমাকে নিঃশর্ত মুক্তির দাবি জানিয়েছে।
—————–

সিএইচটি নিউজ ডটকম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.