আলীকদমে ত্রিপুরা কিশোরীকে ধর্ষণকারীদের শাস্তির দাবি জানিয়েছে হিল উইমেন্স ফেডারেশন

0
0

বান্দরবান : হিল উইমেন্স ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সভাপতি নিরূপা চাকমা আজ ১৭ এপ্রিল ২০১৮, মঙ্গলবার সংবাদ মাধ্যমে এক বিবৃতিতে গত ১৩ এপ্রিল বান্দরবান জেলার আলীকদম উপজেলার বালুঝিড়ি এলাকায় ১৪ বছর বয়সী ত্রিপুরা কিশোরীকে ধর্ষণের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে অবিলম্বে ঘটনায় জড়িত দুর্বৃত্তদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

বিবৃতিতে তিনি পার্বত্য চট্টগ্রামসহ সারাদেশে নারী নির্যাতন-ধর্ষণের ঘটনা দিন দিন বৃদ্ধিতে উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেন, পাহাড়ি নারীরা যে কতটা অনিরাপদ তা পাহাড়িদের ‘বৈসাবি’ (বৈসু-সাংগ্রাই-বিঝু) উৎসবের সময় ওই কিশোরীকে ধর্ষণের ঘটনা থেকে প্রমাণিত হয়।

তিনি প্রতিনিয়ত এসব ঘটনা ঘটনার পিছনে দেশের বিচারহীনতাকে দায়ি করে বলেন, ‘গত ২১ জানুয়ারি রাঙামাটির বিলাইছড়িতে সেনা সদস্য কর্তৃক দুই মারমা তরুণীকে ধর্ষণ ও যৌন নির্যাতনের ঘটনার কোন বিচার হয়নি। উপরন্তু এ ঘটনার বিচার ও দুই তরুণীকে নিরাপদে রাখার ব্যবস্থা করতে গিয়ে চাকমা রাণী ইয়েন ইয়েন শারীরিক লাঞ্ছনার শিকার হয়েছিলেন। গত ১৮ মার্চ রাঙামাটির কুদুকছড়ি থেকে সেনা মদদপুষ্ট সন্ত্রাসী কর্তৃক হিল উইমেন্স ফেডারেশনের দুই নেত্রী অপহৃত হলেও আজ পর্যন্ত তাদের কোন হদিস পাওয়া যায়নি। অপহরণকারী সন্ত্রাসীদেরও কাউকে এখনো আইনের আওতায় আনা হয়নি’।

বিবৃতিতে তিনি অবিলম্বে ত্রিপুরা কিশোরীর ধর্ষণকারী সকলকে গ্রেফতারপুর্বক দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি, বিলাইছড়ির দুই মারমা তরুণী ধষণ-যৌন নির্যাতনের বিচার ও হিল উইমেন্স ফেডারেশনের দুই নেত্রী মন্টি ও দয়াসোনা চাকমাকে অক্ষত অবস্থায় উদ্ধারের দাবি জানান।

উল্লেখ্য, গত ১৩ এপ্রিল ২০১৮ আলীকদম উপজেলার কুরুকপাতা ইউনিয়নের বালুঝিড়ি পাড়ায় ১৪ বছর বয়সী ত্রিপুরা কিশোরীকে মোঃ সোহেলসহ ৪ বাঙালি যুবক মিলে গণধর্ষণ করে। এর মধ্যে পুলিশ অভিযুক্ত সোহেলসহ দুই জনকে গ্রেফতার করলেও বাকীদের এখনো গ্রেফতার করতে পারেনি।
——————–
সিএইচটি নিউজ ডটকম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.