উগ্র সাম্প্রদায়িক সংগঠন দিয়ে মানববন্ধন কর্মসূচী বানচালের নিন্দা জানিয়েছে দীঘিনালা ভূমি রক্ষা কমিটি

0
0

সিএইচটিনিউজ.কম
দীঘিনালা ভূমি রক্ষা কমিটির আহ্বায়ক ও বাবুছাড় ইউনিয়ন পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান পরিতোষ চাকমা আজ ৩ জুলাই বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে উগ্রসাম্প্রদায়িক সেটলার সংগঠনকে ব্যবহার করে কমিটির পূর্বঘোষিত মানববন্ধন কর্মসূচী বানচালের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

Bibrityবিবৃতিতে তিনি বলেন, “গত ৩০ জুনের সমাবেশ থেকে বাবুছড়ায় বিজিবির ব্যাটালিয়ন সদর দপ্তরের নামে জোরপূর্বক ও অবৈধ ভূমি অধিগ্রহণ বাতিলের দাবিতে আজ ৩ জুলাই বাবুছড়া হতে দীঘিনালা সদর পর্যন্ত সড়কে মানববন্ধন কর্মসূচী ঘোষণা করা হয়। কিন্তু শান্তিপূর্ণ এই কর্মসচী বানচালের জন্য একটি কায়েমী স্বার্থবাদী মহল গতকাল অর্থাৎ ২ জুলাই সন্ধ্যায় হঠাৎ একটি উগ্র সাম্প্রদায়িক সেটলার সংগঠনকে দিয়ে একই রাস্তায় একই সময়ে ভূয়া ইস্যুতে ভূয়া মানববন্ধন কর্মসূচী ঘোষণা করায়, এবং এটাকে অজুহাত হিসেবে ব্যবহার করে স্থানীয় প্রশাসন ১৪৪ ধারা জারি করে।”

পরিতোষ চাকমা আরো বলেন, “রাষ্ট্রীয় বাহিনীর স্বার্থান্বেষী মহলটির এই খেলা নতুন কিছু নয়। অতীতেও তারা জনগণের ন্যায়সঙ্গত আন্দোলন দমনের জন্য বহুবার সেটলারদের সংগঠনকে এভাবে হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করেছে, আজকের মতো একই জায়গায় একই সময়ে ভূয়া কর্মসূচী হাজির করেছে। কিন্তু তা সত্বেও জনগণের আন্দোলন থামানো যায়নি। দীঘিনালা জনগণের ন্যায়সঙ্গত আন্দোলনও এই পুরোনো ফ্যাসিস্ট স্টাইলের কৌশল দিয়ে কখনোই রোধ করা যাবে না।”

তিনি অবিলম্বে জোরজবরদস্তিমূলক ও অবৈধ ভূমি অধিগ্রহণ বাতিল, বাবুছড়া থেকে বিজিবির ৫১ নং ব্যাটালিয়ন সদস্যদের প্রত্যাহার, বেদখলকৃত জমি ফেরত প্রদান, ১০ জুন হামলার সাথে জড়িত বিজিবি-পুলিশ সদস্য ও সেটলারদের গ্রেফতারপূর্বক শাস্তি এবং উক্ত হামলায় আহত ও উচ্ছেদ হওয়া পরিবারদের যথোপযুক্ত ক্ষতিপূরণ দেয়ার দাবি জানান। ভূমি রক্ষা কমিটির সদস্য ধর্ম জ্যোতি চাকমার স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।
————

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.