খাগড়াছড়িতে পাহাড়ি মেয়ে ধর্ষণের প্রতিবাদে মহালছড়িতে ৩ সংগঠনের বিক্ষোভ

0
1

সিএইচটিনিউজ.কম
khagrachari Mahalchari Missil pic 29-01-2015মহালছড়ি প্রতিনিধি: খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার পানখাইয়া পাড়ায় মারমা সম্প্রদায়ের এক পাহাড়ি মেয়ে ধর্ষণের প্রতিবাদ ও ধর্ষকের শাস্তির দাবীতে মহালছড়িতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে বৃহত্তর পার্বত্য পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ (পিসিপি), গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম (ডি ওয়াই এফ) ও হিল উইমেন্স ফেডারেশন (এইচ ডব্লিউ এফ)। বিক্ষোভ মিছিলটি বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১১ টায় মহালছড়ি কলেজ প্রাঙ্গন থেকে শুরু হয়ে মহালছড়ি বাজার পেপার বোর্ড এর সামনে এসে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে। সমাবেশে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ মহালছড়ি কলেজ শাখার সাংগঠনিক সম্পাদক রিপন চাকমা’র সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন, গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম মহালছড়ি উপজেলা শাখার সভাপতি পলাশ চাকমা, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ মহালছড়ি উপজেলা শাখার সভাপতি তপন চাকমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশন মহালছড়ি উপজেলা শাখার তথ্য ও প্রচার সম্পাদক স্বরূপা চাকমা প্রমূখ।

বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তারা বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে নারী নির্যাতন, ভূমি বেদখল, সাম্প্রদায়িক হামলা প্রতিনিয়ত ঘটেই চলেছে। সরকার একদিকে নারী নির্যাতন, অপরদিকে ভূমি বেদখলের মাধ্যমে সরকার পার্বত্য চট্টগ্রাম থেকে পাহাড়িদের অস্তিত্ব বিলীন করে দেয়ার চক্রান্তে লিপ্ত রয়েছে। এর বিরুদ্ধে নারী সমাজ সহ সবাইকে রুখে দাঁড়ানোর আহাবান জানান।

সমাবেশে বক্তারা ধর্ষক দেব বিকাশ বড়ূয়ার শাস্তি দাবী করেন এবং নারী সমাজ, ছাত্র সমাজ ও যুব সমাজকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে সকল ধরনের নিপীড়ন-নির্যাতনের বিরুদ্ধে ঐক্যবদ্ধ হয়ে প্রতিরোধ গড়ে তোলার আহ্বান জানান।

উল্লেখ্য, গত ২৮ জানুয়ারী বুধবার সকাল ১১ টায় খাগড়াছড়ি’র পানখাইয়া পাড়ার কাপড় দোকানদার দেব বিকাশ বড়ূয়া (৪০) টিউবওয়েলে পানি আনতে গেলে সেখানে তখন একা পেয়ে ২০ বছরের এক পাহাড়ি মেয়েকে ধর্ষন করে পালিয়ে যায়। পরে এলাকার লোকজনের কাছে ঘটনাটি জানাজানি হলে ভিকটিমের দেওয়া বক্তব্য অনুযায়ী ধর্ষক দেব বিকাশ বড়ূয়াকে আটক করে পুলিশে সৌপর্দ করে।

জানা গেছে, মেয়েটির বাড়ি জেলার গুইমারা উপজেলায়। সে পানখাইয়া পাড়া হ্লাথোয়াই চৌধুরী (অবসর প্রাপ্ত সেনা সদস্য) বাড়িতে গৃহকর্মীর কাজ করে।

এদিকে ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত দেব বিকাশ বড়ূয়া চাকুরীচ্যুত একজন সাবেক সেনা সদস্য বলে জানাগেছে। তার আসল বাড়ি মহালছড়িতে। বর্তমানে তিনি পানখাইয়া পাড়ায় একটি কাপড়ের দোকান দিয়ে ব্যবসা করছেন। তিনি ২০০৬ সালে সেনা বাহিনীতে চাকুরী কালীন সময়ে অবৈধ কাজে লিপ্ত থাকার অভিযোগে চাকুরীচ্যুত হয়েছেন বলে স্থানীয় সূত্রে জানা যায়।
—————–

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.