খাগড়াছড়িতে সাম্প্রদায়িক হামলার ৪র্থ বার্ষিকীতে ভিডিও চিত্র প্রদর্শনী

0
1

নিজস্ব প্রতিবেদক,সিএইচটিনিউজ.কম
Flim Showখাগড়াছড়িতে পাহাড়িদের উপর সাম্প্রদায়িক হামলার ৪র্থ বার্ষিকীতে আজ ২৩ ফেব্রুয়ারী রবিবার সন্ধ্যায় বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের উদ্যোগে সাতভাইয়া পাড়ায় বিভিন্ন হামলার উপর নির্মিত ভিডিও চিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়। এতে বক্তব্য রাখেন ইউপিডিএফ’র খাগড়াছড়ি জেলা সংগঠক অংগ্য মারমা ও পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সভাপতি থুইক্যচিং মারমা।

ভিডিও চিত্র প্রদর্শনী অনুষ্ঠান উদ্বোধন করেন সাতভাইয়া পাড়ার বিশিষ্ট মুরুব্বী লাব্রেচাই মারমা। এ সময় তিনি বলেন, আজকের দিনটি সবার জন্য বেদনাদায়ক একটি দিন। এ দিনকে মনে রেখে আমাদের সকলের এক হতে হবে। শুধুমাত্র মারমারা এক হলে হবে না। অধিকার আদায়ের জন্য চাকমা, মারমাসহ অন্যান্য সকল পাহাড়ি জাতিকে এক হয়ে সংগ্রাম করতে হবে।

এরপর সাজেক ও খাগড়াছড়ির সাম্প্রদায়িক হামলার উপর নির্মিত ‘পাহাড়ে আগুন জ্বলে (HILL IN FLAMES)’, মাইসছড়ি হামলার উপর নির্মিত ‘জাগা হারা পালা (BALLAD OF LAND ALIENATION)’ ও মহালছড়ি হামলার উপর নির্মিত ‘টেরিফাইড ভয়েস(TERRIFIED VOICE) নামে তিনিটি ভিডিও চিত্র প্রদর্শন করা হয়।

উল্লেখ্য, ২০১০ সালের ২৩ ফেব্রুয়ারী প্রশাসনের সহযোগিতায় বাঙালিরা খাগড়াছড়ি শহরের মহাজন পাড়াসহ কয়েকটি গ্রামে ও সাতভাইয়া পাড়ায় পরিকল্পিতভাবে পাহাড়িদের বাড়িঘর ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা, অগ্নিসংযোগ, ভাংচুর সহ ব্যাপক লুটপাট চালায়। এতে মহাজন পাড়ায় অফিসহ ১৯টি, কলেজ পাড়ায় ৪টি, খাগড়াছড়ি সরকারী উচ্চ বিদ্যালয় এলাকায় ৩টি ও সাতভাইয়া পাড়ায় ৪১টি বাড়ি পুড়ে ছাই করে দেওয়া হয়। এছাড়া ৪টি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে লুটপাট ও ভাংচুর এবং সাতভাইয়া পাড়ায় অপর ৪টি বাড়িতে লুটপাট চালানো হয়।


Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.