গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের নেতা মাইকেল চাকমাকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে খাগড়াছড়িতে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত

0
0

খাগড়াছড়ি প্র্রতিনিধি, সিএইচটিনিউজ.কম
র‌্যাব-৭ কর্তৃচট্টগ্রামের পাহাড়তলী এলাকার বণিক পাড়া থেকে গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের কেন্দ্রীয় সদস্য সচিব মাইকেল চাকমাকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে খাগড়াছড়িতে বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে৷ পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম ও হিল উইমেন্স ফেডারেশন-এর উদ্যোগে স্বনির্ভর বাজার থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করতে চাইলে পুলিশি স্বনির্ভর বাজার থেকে মিছিল বের করতে দেয়নি৷ ফলে সেখানেই এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়৷ এতে বক্তব্য রাখেন পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি ক্যহাচিং মারমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক রীনা দেওয়ান, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় সদস্য শিমন চাকমা৷

বক্তারা বলেন, গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের আগামী ১ এপ্রিল অনুষ্ঠিতব্য কাউন্সিল সফলভাবে সম্পন্ন করার ল্যে মাইকেল চাকমা উক্ত এলাকায় সাংগঠনিক কাজে গিয়েছিলেন৷ সাংগঠনিক কাজ চালানোর সময় সন্তু লারমার সন্ত্রাসীদের যোগ সাজশে র্যাব তাকে আটক করে৷

বক্তারা বলেন, র‌্যাব কাউকে গ্রেফতার করলে একটি নাটক সাজায়। মাইকেল চাকমাকে গ্রেফতারের ক্ষেত্রেও এর ব্যতিক্রম হয়নি৷ গ্রেফতারের সময় মাইকেল চাকমার হাতে কোন কিছু পাওয়া না গেলেও মিথ্যা, বানোয়াট ও ষড়যন্ত্রমূলকভাবে তার হাতে অস্ত্র গুজে দিয়ে একজন সন্ত্রাসী হিসেবে চিত্রিত করার নাটক সাজানো হয়েছে।

বক্তারা আরো বলেন, সরকার পার্বত্য সমস্যার স্থায়ী সমাধানের জন্য পার্বত্য চট্টগ্রাম থেকে সেনা শাসন প্রত্যাহার, সেটলার কর্তৃক ভূমি জবরদখল বন্ধের উদ্যোগ না নিয়ে বিনা কারণে নেতৃবৃ্ন্দকে আটকের উদ্যোগ নিয়ে কার্যত জুম্ম জনগণের প্রতি বৈষম্যমূলক ফ্যাসিস্ট আচরণই করছে। বক্তারা অবিলম্বে সরকারের এই নীতি পরিবর্তনের আহ্বান জানান।

বক্তারা বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামের অধিকার আদায়ের আন্দোলনে গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম একটি অগ্রণী শক্তি। এ শক্তিকে ধ্বংস করে দেয়ার মাধ্যমে পার্বত্য চট্টগ্রামের আন্দোলনকে নস্যাত্‍ করে দিতেই সরকার মরিয়া হয়ে উঠেছে৷ এ লক্ষ্যেই মাইকেল চাকমাকে র‌্যাব দিয়ে গ্রেফতার করা হয়েছে।

বক্তারা অবিলম্বে মাইকেল চাকমাকে নিঃশর্ত মুক্তি দানের জন্য সরকার এবং সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি জোর দাবি জানান। অন্যথায় বৃহত্তর কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে বলে হুঁশিয়ারী উচ্চারণ করেন।

এছাড়াও ঘটনার প্রতিবাদে এবং মাইকেল চাকমাকে অবিলম্বে নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে খাগড়াছড়ি জেলার পানছড়ি,দিঘীনালা, মহালছড়ি এবংরাঙামাটি জেলার কাউখালীতে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়েছে৷পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের খাগড়াছড়ি জেলা শাখার দপ্তর সম্পাদক বিপুল চাকমার স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

উল্লেখ্য যে, গতকাল ৮ ফেব্রুয়ারী ২০১১ মঙ্গলবার সন্ধ্যা আনুমানিক ৬টার সময় চট্টগ্রামের পাহাড়তলী এলাকায় সাংগঠনিক কাজে গেলে সেখান থেকে র‌্যাব-৭ কর্তৃক মাইকেল চাকমাকে আটক করা হয়।

ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট(ইউপিডিএফ)-এর কেন্দ্রীয় সদস্য উজ্জ্বল স্মৃতি চাকমা, গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের কেন্দ্রীয় আহ্বায়ক মিঠুন চাকমা, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সভাপতি অংগ্য মারমা ও সাধারণ সম্পাদক সুমেন চাকমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশন-এর কেন্দ্রীয় সহ সভাপতি নিরূপা চাকমা ও সাধারণ সম্পাদক কণিকা দেওয়ান উক্ত গ্রেফতারের ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন এবং অবিলম্বে মাইকেল চাকমাকে নিঃশর্ত মুক্তির দাবি করেছেন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.