তনু হত্যার প্রতিবাদে রাঙামাটির কুদুকছড়িতে বিক্ষোভ

0
3

 

Kudukchariরাঙামাটি : ‘বিচারহীনতার সংস্কৃতির বিরুদ্ধে রুখে দাড়াও’ এই শ্লোগানে কুমিল্লা সেনানিবাস এলাকায় ভিক্টোরিয়া কলেজের ছাত্রী সোহাগী জাহান তনু হত্যার প্রতিবাদে ও হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে রাঙামাটির কুদুকছড়িতে বিক্ষোভ মিছিল করেছে ঘিলাছড়ি নারী নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি, হিল উইমেন্স ফেডারেশন, গণতান্ত্রিক যুব ফোরাম ও বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ(পিসিপি)।

বৃহস্পতিবার (৩১ মার্চ) বেলা ২টায় বড় মহাপূরম উচ্চ বিদ্যালয় গেইট থেকে মিছিল শুরু হয়ে কুদুকছড়ি বাজার প্রদক্ষিণ করে সিএনজি স্টেশনে এসে সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। এতে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের রাঙামাটি জেলা সাধারণ সম্পাদক কুনেন্টু চাকমার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক অংগ্য মারমা, রাঙামাটি সদর থানা শাখার আহ্বায়ক ধর্মশিং চাকমা, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক অনিল চাকমা, ঘিলাছড়ি নারী নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটির সাবেক সভাপতি শান্তি প্রভা খীসা ও হিল উইমেন্স ফেডারেশনের রাঙামাটি জেলা শাখার সদস্য এন্টি চাকমা।

অংগ্য মার্মা বলেন, ১৯৯৬ সালে ১২জুন কল্পনা চাকমা অপহরণ এবং সোহাগী জাহান তনু’র হত্যার ঘটনার মধ্যে মিল রয়েছে। তিনি বলেন তনু’র লাশ যেখানে পাওয়া যায় সেটা সংরক্ষিত এলাকা। যেখানে অনুমতি ছাড়া কোন কাক পক্ষীও ঢুকতে পারে না, সেখানে কিভাবে বাইরে লোক গিয়ে ঘটনা ঘটিয়ে পালিয়ে যাওয়া সম্ভব?

অনিল চাকমা বলেন, তনু হত্যার প্রতিবাদে শুধু ক্যাম্পাসে নয়, সারা দেশে আন্দোলন হচ্ছে। তিনি বলেন, সেনানিবাসের মত জায়গায় নারীরা নিরাপদ নয়। সেখানেও লাশ হতে হয় তনুদের। তিনি আরো বলেন, যেখানে সেনানিবাস এলাকার ভিতর তনুকে ধর্ষণ করে হত্যা করা হয় সেখানে গোটা পার্বত্য চট্টগ্রামকে সেনানিবাসে পরিণত করার উদ্দেশ্য কী হতে পারে তা সহজেই বুঝা যায়।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে তুমাচিং, সবিতা, ছবি মার্মার ধর্ষণ ও হত্যাকারীদের আজও বিচার হয়নি। যার কারণে আজ তনুকে লাশ হতে হলো। দেশে এই বিচারহীনতার সংস্কৃতির কারণে পার্বত্য চট্টগ্রামসহ সারা দেশে নারী ধর্ষণ এবং ধর্ষণের পর হত্যার মতো নৃশংস ঘটনা সংঘটিত হচ্ছে। তিনি অবিলম্বে তনু হত্যার সাথে জড়িতদের গ্রেফতার এবং পার্বত্য চট্টগ্রামসহ সারা দেশে নারী ধর্ষণ ও ধর্ষণের পর হত্যার প্রকৃত দোষীদের চিহ্নিত করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।

তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রদের ঘোষিত ৩ এপ্রিল সারাদেশে ছাত্র ধর্মঘট কর্মসূচির সমর্থন জানিয়ে বলেন, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ কর্মসূচি সফল করার জন্য সক্রিয় ভূমিকা পালন করবে।  তিনি এ কর্মসূচি সফল করার জন্য ছাত্র সমাজের প্রতি আহ্বান জানান। পরে ছাত্র ধর্মঘট কর্মসূচির সমর্থনে মিছিলটি আবারো বড় মহাপূরম উচ্চ বিদ্যালয়ে গেইটে এসে শেষ হয়।
—————-

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.