দীঘিনালায় পাহাড়িদের জায়গার উপর বিজিবি সেক্টর হেডকোয়ার্টার স্থাপনের প্রতিবাদে মানববন্ধন

0
0

সিএইচটিনিউজ.কম
Dighinala human chain programদীঘিনালা(খাগড়াছড়ি): খাগড়াছড়ির দীঘিনালা উপজেলার দীঘিনালা ইউনিয়নের বাবুছড়া এলাকায় অবৈধভাবে ও জোরপূর্বক পাহাড়িদের জায়গা বেদখল করে বিজিবি সেক্টর হেডকোয়ার্টার স্থাপনের প্রতিবাদে দীঘিনালা ভূমি রক্ষা কমিটির ব্যানারে সর্বস্তরের জনগণের অংশগ্রহণে বিশাল মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে এলাকাবাসী। সোমবার সকাল ১০-১১টা পর্যন্ত উপজেলা সদরে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বিজিবি কর্তৃক বেদখলকৃত ভুমির মালিকগণ এবং বাবুছড়া ও দীঘিনালা ইউনিয়নের জনপ্রতিনিধিসহ প্রায় দেড় হাজার লোক অংশগ্রহন করেন।

মানববন্ধন চলাকালে তারা ‘বাবুছড়ায় বিজিবি’র সেক্টর হেডকোয়ার্টর স্থাপন অবিলম্বে বন্ধ কর’; ‘সেক্টর হেডকোয়ার্টার স্থাপনের নামে বিজিবি’র জোর পূর্বক ভূমি বেদখল মানিনা, মানবনা’; ‘জীবন দেবো, তবুও আমাদের ভূমির মালিকানা ছাড়বোনা’; ‘আমাদের পিঠ দেওয়ালে ঠেকে গেছে-আমাদের হারানোর আর কিছু নেই’; ‘আমাদের ভূমি বেদখল সম্পূর্ণ আইন বিরুদ্ধ’; ‘বাবুছড়ায় বিজিবি সেক্টর হেডকোয়ার্টার-মানিনা, মানবোনা’ ইত্যাদি শ্লোগান সম্বলিত প্ল্যাকার্ড প্রদর্শন করে প্রতিবাদ জানায়।DSC04861

মানবন্ধনে বাবুছড়া ইউপি চেয়ারম্যান এবং দীঘিনালা ভূমি রক্ষা কমিটির অন্যতম সদস্য সুগত প্রিয় চাকমার সভাপতিত্বে এবং দীপংকর চাকমার পরিচালনায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ভূমি রক্ষা কমিটির সদস্য এবং দীঘিনালা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান চন্দ্র রঞ্জন চাকমা, কবাখালী ইউপি চেয়ারম্যান বিশ্বকল্যাণ চাকমা, পার্বত্য চট্টগ্রাম নারীর সংঘের কেন্দ্রীয় সদস্য এবং বাবু ছড়া ইউপি সদস্য প্রতিভা চাকমা, ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের পক্ষে নতুন চন্দ্র চাকমা, তরুন তর্পন চাকমা ও পূর্ণচন্দ্র কার্বারি প্রমুখ।

বক্তারা বিজিবি’র সেক্টর হেডকোয়ার্টার স্থাপনকে ভূমি বেদখলের গভীর ষড়যন্ত্র এবং সেটলার বাঙালি পুনর্বাসনের নীল নকশা আখ্যায়িত করে সরকারের এ অনৈতিক সিদ্ধান্ত বাতিল এবং অবস্থানরত বিজিবি সদস্যদের অচিরেই প্রত্যাহারের দাবি জানান। অন্যথায় কঠোর কর্মসূচি দেয়ার ঘোষনা দেন।

humanchaindighinala1বক্তরা বেদখলকৃত ভূমি উদ্ধার না হওয়া পর্যন্ত এলাকাবাসীকে আন্দোলন সংগ্রাম চালিয়ে যাওয়ার আহবান জানান।

উল্লেখ্য যে, বিগত  ২০০৫ সালেও হেডকোয়ার্টার স্থাপনের হীন চেষ্টা চালানো হয়। কিন্তু প্রকৃত জায়গার মালিক এবং এলাকাবাসীর তীব্র প্রতিবাদের কারণে এবং হাইকোর্টে রিট মামলা করায় শেষ পযর্ন্ত সরিয়ে যেতে বাধ্য হয়। রিট মামলায় হাইকোর্ট রুল জারি করে উক্ত জায়গা বিষয়ে রায় না হওয়া পযর্ন্ত কেউ যেন উক্ত জায়গায় হাত না দেয়। বর্তমানে মামলার রায় হওয়ায় অপেক্ষায়। কিন্তু কোর্টের রায় না হওয়ার আগেই  গত ১৫ মে ভোররাতের দিকে ১৫-২০ টি গাড়ি নিয়ে জোর পূর্বক অবৈধভাবে উক্ত জায়গায় অবস্থান নেয় বিজিবির ৫১ নং ব্যাটেলিয়নের সদস্যরা। বর্তমানে টাবু টাঙিয়ে তারা সেখানে অবস্থান করছে এবং দিনরাত টহল জারি রেখেছে।
—————

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.