পানছড়িতে ধর্মীয় অনুষ্ঠানে সেনাবাহিনীর হানা, এলাকাবাসীর প্রতিরোধ

0
6

সিএইচটি নিউজ ডটকম
Panchari3পানছড়ি প্রতিনিধি : খাগড়াছড়ির পানছড়ি উপজেলার লতিবান ইউনিয়নের নালকাটা আম্রকানন বৌদ্ধ বিহারের পরলোকগত আনন্দপাল মহাথেরোর অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া উপলক্ষে আয়োজিত ধর্মীয় অনুষ্ঠানে সেনাবাহিনী হানা দিয়ে সুসময় চাকমা নামে অনুষ্ঠানের এক স্বেচ্ছাসেবককে আটক করে নিয়ে যেতে চাইলে এলাকাবাসী প্রতিরোধ করে। এতে সেনারা তাকে ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়। গত বৃহস্পতিবার (১০ মার্চ) এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, গত ২ ফেব্রুয়ারি আম্রকানন বৌদ্ধ বিহারের অধ্যক্ষ আনন্দপাল মহাথেরো পরলোক গমন করেন। বৃহস্পতিবার তাঁর অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া উপলক্ষে এক ধর্মীয় (গাড়িটানা) অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এতে বিভিন্ন এলাকা থেকে স্বধর্মপ্রাণ হাজার হাজার নারী-পুরুষ অংশগ্রহণ করেন। অনুষ্ঠান চলাকালে বিকাল ৪টার সময় পানছড়ি সেনা জোন থেকে গাড়িযোগে একদল সেনা সদস্য অনুষ্ঠানে হানা দেয় এবং অনুষ্ঠান ভণ্ডুল করে দেয়ার চেষ্টা চালায়। এ সময় সেনারা অনুষ্ঠানের স্বেচ্ছাসেবক সুসময় চাকমাকে আটক করে নিয়ে যেতে চাইলে এলাকাবাসী প্রতিরোধ গড়ে তুললে সেনারা পরে সুসময়কে ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়। তবে সেনারা তাঁর কাছ থেকে সিম্পোনি মোবাইল ফোন ১টি, মানিব্যাগ ১টি ছিনিয়ে নিয়ে যায়। মানিব্যাগে ৯,৪৩৫ টাকা রাখা ছিল বলে সুসময় চাকমা জানিয়েছেন।

নালকাটা এলাকার এক মুরুব্বী ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামে সেনাবাহিনীর খবরদারি, নজরদারি এতই বৃদ্ধি পেয়েছে যে, ধর্মীয় অনুষ্ঠান, সামাজিক অনুষ্ঠান পর্যন্ত ভালোভাবে করা যাচ্ছে না। সর্বত্রই এখন সেনাবাহিনী নগ্ন হস্তক্ষেপ করে চলেছে। একটা গণতান্ত্রিক দেশে এটা কখনো চলতে পারে না।
——————–

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.