বাঘাইছড়িতে এক স্কুল শিক্ষককে গুলি করে হত্যা করেছে সন্তু গ্রুপের সন্ত্রাসীরা

0
2

বাঘাইছড়ি প্রতিনিধি, সিএইচটিনিউজ.কম

রাঙামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলার মারিশ্যা ইউনিয়নের খেদারাছড়ায় এক স্কুল শিক্ষককে গুলি করে হত্যা করেছে জেএসএস সন্তু গ্রুপের সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা। তার নাম পুর্নিময় চাকমা(৪৮) পিতা মৃত. কালাচান চাকমা, গ্রাম খেদারাছড়া। তিনি খেদারাছড়া রেজি: প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক।

জানা যায়, গত মধ্যরাত আনুমানিক ২টার সময় রাজীব চাকমার নেতৃত্বে সন্তু গ্রুপের ১৫/২০ জনের একদল সশস্ত্র সন্ত্রাসী খেদারাছড়া গ্রামে হানা দেয়। সন্ত্রাসীরা পুর্নিময় চাকমার বাড়ি ঘেরাও করে তাকে গুলি করে হত্যা করে। এ সময় তিনি পরিবার-পরিজন নিয়ে ঘুমাচ্ছিলেন। তার মৃত্যু নিশ্চিত করে সন্ত্রাসীরা পালিয়ে যায়। কি কারণে তাকে হত্যা করা হয়েছে তা জানা যায়নি। তবে তার এক ভাই ইউপিডিএফ-এর সাথে কাজ করার কারণে তাকে হত্যা করা হয়ে থাকতে পারে বলে এলাকাবাসীর ধারণা। এ ঘটনায় এলাকার জনমনে আতঙ্ক বিরাজ করছে।

স্থানীয় কয়েকজন জনপ্রতিনিধির সাথে কথা বলে জানা গেছে, ঘটনার পর রাত আনুমানিক ৩টার দিকে করঙাতলী আর্মি ক্যাম্পের মেজর মেহেদী তাদের কয়েকজন জনপ্রতিনিধিকে মোবাইলে ফোন করে ঘটনাটি জানিয়ে বলেছেন ‘আপনাদেরকে অনেক আগে থেকে বলে আসছি বাঘাইহাট বাজার খুলে দেয়ার জন্য। কিন্তু আপনারা এখনো বাজার খুলে দেননি। বাঘাইহাট বাজার খুলে দেয়া না হলে এ ধরনের ঘটনা আবারো ঘটবে। আপনারাও রেহাই পাবেন না।’

উল্লেখ্য, গত কয়েকদিন আগে বাঘাইহাট জোন কমান্ডার জনপ্রতিনিধিদের ডেকে ২৬ ফেব্রুয়ারির মধ্যে বাঘাইহাট বাজার খুলে দেয়া না হলে সন্তু গ্রুপের সন্ত্রাসীদের নিয়ে এসে বাঘাইহাট বাজার খোলা হবে বলে হুমকি দিয়েছিলেন। এর কয়েকদিন যেতে না যেতেই সন্তু গ্রুপের সন্ত্রাসীদের দিয়ে পুর্নিময় চাকমাকে হত্যা করা হলো।

ইউপিডিএফ বাঘাইছড়ি উপজেলা ইউনিটের সংগঠক সমশান্তি চাকমা উক্ত স্কুল শিক্ষককে হত্যার তীব্র নিন্দা জানিয়ে অবিলম্বে সন্তু গ্রুপের সন্ত্রাসীদের গ্রেফতারের দাবি জানিয়েছেন।



Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.