বাঘাইছড়িতে সন্ত্রাসীদের গুলিতে বাবা ও মেয়ে নিহত

0
1

বাঘাইছড়ি প্রতিনিধি, সিএইচটিনিউজ.কম
রাঙামাটি জেলার বাঘাইছড়ির কদমতলী গ্রামে জনসংহতি সমিতির (এম.এন লারমা) সদস্য চিজিমনি চাকমা(৩৫) ও তার দুই বছরের কন্যা শিশু অর্কি চাকমাকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। গত ১৩ এপ্রিল মধ্যরাতে এ ঘটনা ঘটে। সন্তু গ্রুপের সশস্ত্র সদস্যরা এ ঘটনা ঘটিয়েছে বলে জানা গেছে। যখন সারা পার্বত্য চট্টগ্রাম বৈসাবি উত্‍সবে মুখরিত তখন এ হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটলো।

জানা গেছে, চিজিমনি চাকমা সারাদিনের উত্‍সব শেষে রাড়ির দরজা খোলা রেখে ক্লান্ত শরীরে নিজ বাড়িতে ঘুমোচ্ছিলেন এমন সময় সন্তু গ্রুপের একদল সশস্ত্র সন্ত্রাসী এসে বাড়িতে ঢুকে নির্বিচারে গুলি চালিয়ে তাদের খুন করে চলে যায়

রিটেন দেওয়ান ওরফে নিলয়-এর নেতৃত্বে সন্তু গ্রুপের সন্ত্রাসীরা শিজক থেকে এসে এ লোমমহর্ষক হত্যাকান্ড ঘটায়

ইউনাইটেড পিপল্স ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ) রাঙামাটি জেলা ইউনিটের প্রধান সংগঠক শান্তি দেব চাকমা, গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের সভাপতি নতুন কুমার চাকমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক কণিকা দেওয়ান ও পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের সভাপতি অংগ্য মারমা এক যুক্ত বিবৃতিতে উক্ত হত্যাকান্ডের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন

নেতৃবৃন্দ অবিলম্বে খুনী সন্তু গ্রুপের সশস্ত্র সদস্যদের বিরুদ্ধে কঠোর আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার জন্য সরকারের প্রতি দাবি জানান

তারা বলেন, “যতদিন সন্তু লারমাকে আঞ্চলিক পরিষদের গদিতে রাখা হবে ততদিন পাহাড়ে রক্তপাত বন্ধ হবে নাঅপরদিকে, পাহাড়িদের মধ্যে আভ্যন্তরীণ সংঘাত জিইয়ে রাখতে সরকারও তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়ার বদলে বরং তাকে জামাই আদর দিয়ে লালন পালন করছে তারা বলেন সরকারের এ জঘন্য খেলা অবিলম্বে বন্ধ হওয়া দরকার।


Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.