বান্দরবানে ইউপিডিএফের ২২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীতে আলোচনা সভা

0
29

বান্দরবান ।। ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট (ইউপিডিএফ) এর ২২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে বান্দরবানে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

আজ ২৬ ডিসেম্বর ২০২০ সকাল ৯:৪৫টার সময় ইউপিডিএফ’র বান্দরবান জেলা ইউনিটের উদ্যোগে ইউপিডিএফ কার্যালয়ে “পার্বত্য চট্টগ্রামে বর্তমান পরিস্থিতি ও করণীয়” শীর্ষক মুক্ত আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

উক্ত আলোচনা সভায় প্রতিম চাকমার সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন ইউপিডিএফের বান্দরবান জেলার ইউনিটের সংগঠক ছোটন কান্তি তংঞ্চঙ্গ্যা ও পাইমং মারমা।

সভায়, প্রধান বক্তা ছোটন কান্তি তংঞ্চঙ্গ্যা বলেন, নানা চড়াই-উৎরাই পেরিয়ে ইউপিডিএফ আজ ২২ বছরে উপনীত হয়েছে। নানা ধরনের নিপীড়ন-নির্যাতনের মধ্যে আদর্শ সমুন্নত রেখে আপোষহীন লড়াইয়ে টিকে থাকতে পারাই হচ্ছে ইউপিডিএফের অন্যতম সাফল্য।

তিনি বলেন, তথাকথিত উন্নয়নের নামে পার্বত্য চট্টগ্রামে বিশেষত বান্দরবানে ভূমি অধিগ্রহণ, পাহাড় ধ্বংস ও বন উজাড় করে বিভিন্ন স্থাপনা-রাস্তাঘাট নির্মাণ করা হচ্ছে। থানচি উপজেলায় চিম্বুকে ম্রোদের বংশপরম্পরার ভোগদখলকৃত ভূমি ও বাস্তুভিটা থেকে উচ্ছেদ করে পাঁচ তারকা হোটেল নির্মাণ মানেই ম্রো জাতিসত্তাসমূহকে নিশ্চিহ্ন করা।

তিনি আলিকদম, লামায় পাহাড়িদের বিভিন্ন ছড়া, নালায় বাঁধ দিয়ে পানির উৎস বন্ধ করে পাথর উত্তোলন করে পরিবেশের ভারসাম্য নষ্ট করা হচ্ছে বলেও অভিযোগ করেন এবং বলেন, এধরনের ক্ষতিকর কার্যক্রমের বিরুদ্ধে জনগণকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে রুখে দাঁড়াতে হবে।

তিনি পার্বত্য চট্টগ্রামে জাতিসত্তা ধ্বংস ও পরিবেশ বিধ্বংসী কার্যক্রম থেকে বিরত থাকার জন্য সরকার ও সংশ্লিষ্টদের প্রতি আহ্বান জানান।

 


সিএইচটি নিউজে প্রকাশিত/প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ,ভিডিও, কনটেন্ট ব্যবহার করতে হলে কপিরাইট আইন অনুসরণ করে ব্যবহার করুন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.