বিদেশী নাগরিকদের পার্বত্য চট্টগ্রাম ভ্রমণে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের নতুন নির্দেশনা

0
1

সিএইচটিনিউজ.কম
ডেস্ক রিপোর্ট:  বিদেশী নাগরিকদের পার্বত্য চট্টগ্রাম ভ্রমণের উপর নতুন নির্দেশনা জারি করেছে সরকারের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

গত ২২ মার্চ ২০১৫ ‘বিদেশী নাগরিকদের পার্বত্য অঞ্চল ভ্রমণ, দেশী/বিদেশী ব্যক্তি/সংস্থা কর্তৃক পার্বত্য অঞ্চলে স্থানীয় নৃ-তাত্ত্বিক জনগোষ্ঠীর সাথে সাক্ষাৎ/বৈঠক অনুষ্ঠানের বিষয়ে’ স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল, এমপি’র সভাপতিত্বে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত সভার সিদ্ধান্তবলী বাস্তবায়নের নির্দেশ দিয়ে গত ২৩ এপ্রিল ২০১৫ উপসচিব মোঃ হাবিবুর রহমান স্বাক্ষরিত নতুন এই নির্দেশনাটি জারি করা হয়। যার স্মারক নং-৪৪.০০.০০০০.০৭৯.১৪.০০১.১৪।

Order of MoHome_Page_1নতুন জারি করা নির্দেশনায় বলা হয়েছে-
ক. Guide Tour Operator-দের মাধ্যমে ভ্রমণে ইচ্ছুক সাধারণ বিদেশী পর্যটকগণ সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসক এর নিকট আবেদন করবেন। জেলা প্রশাসক সম্ভাব্য স্বল্পসময়ের মধ্যে নিরাপত্তা সংক্রান্ত বাস্তব অবস্থা যাচাইপূর্বক আবেদন বিবেচনা করে অনুমতি জ্ঞাপন করবেন। এক্ষেত্রে তিনি বিস্তারিত ভ্রমণসূচিসহ অনুমতি জ্ঞাপনের বিষয়টি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, মাঠপর্যায়ে নিয়োজিত সকল আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী, সকল গোয়েন্দা সংস্থা ও সংশ্লিষ্ট অন্যান্য কর্তৃপক্ষকে অবহিতকরবেন।

খ. কূটনীতিক/UN Agency/সমমর্যাদার বিদেশী সংস্থাসমূহে কর্মরত বিদেশী নাগরিকগণের এবং তাদের পরিবারের সদস্য/আত্মীয়-স্বজনদের ক্ষেত্রে পররাষ্ট্র মন্ত্র্রণালয় অনুমতি প্রদান করবে এবং সিদ্ধান্ত ‘ক’ এ বর্ণিত সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষসমূহকে অবহতি করবে।

গ. পার্বত্য জেলাসমূহে অবস্থিত শিল্প, কল-কারখানায় কর্মরত বিদেশী নাগরিকগণের ক্ষেত্রে কারখানা কর্তৃপক্ষকে তাদের উপস্থিতি, মেয়াদ ইত্যাদি উল্লেখ করে জেলা প্রশাসকের কাছে আবেদন করতে হবে। জেলা প্রশাসক যাচাইপূর্বক অনুমতি প্রদান করে সংশ্লিষ্ট সকল কর্তৃপক্ষকে অবহিত করবেন।

ঘ. অন্যান্য সকল ক্ষেত্রে এবং নিজস্ব ব্যবস্থায় ভ্রমণকারী ও গবেষণা বা অন্য কোন কাজে ভ্রমণে ইচ্ছুক বিদেশী নাগরিকগণ ভ্রমণের অন্ততঃপক্ষে ১০ (দশ) দিন পূর্বে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে ভ্রমণের উদ্দেশ্য, ভ্রমণসূচি ও অবস্থানের মেয়াদ বিস্তারিত উল্লেখ করে আবেদন করবেন। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় তাদের আবেদন যাচাই করে অনুমতি প্রদানের বিষয় বিবেচনা করবেন।

ঙ. কোন দেশী-বিদেশী ব্যক্তি/সংস্থা পার্বত্য অঞ্চলে কোন সভা করতে চাইলে জেলা প্রশাসকের নিকট সভার আলোচ্যসূচি, সভার তারিখ, সময়, স্থান, সম্ভাব্য ব্যক্তি, সভার যৌক্তিকতা ইত্যাদি বিষয় উল্লেখ করে আগাম অনুমতি গ্রহণ করতে হবে। জেলা প্রশাসক সভার অনুমতি বিষয়টি যথেষ্ট সময় পূর্বে স্থানীয় আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীসহ সংশ্লিষ্টদের অবহিত করবেন।

উল্লেখ্য, এর আগে গত ২২ জানুয়ারি জারিকৃত নির্দেশনায় বলা হয়েছিলো- ‘কূটনীতিকগণ ছাড়া সাধারণ বিদেশী নাগরিকগণ পার্বত্য চট্টগ্রাম ভ্রমণ করতে চাইলে অন্তত একমাস পূর্বে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে অনুমতির জন্য আবেদন করবেন। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সংশ্লিষ্ট গোয়েন্দা সংস্থার ইতিবাচক প্রতিবেদনের ভিত্তিতে অনুমতি প্রদান করবে। অনুমতি প্রাপ্ত বিদেশী নাগরিকগণ সংশ্লিষ্ট জেলা প্রশাসক/পুলিশ সুপারের নিকট তাদের উপস্থিতি/ভ্রমণ সূচী দাখিল সাপেক্ষে ভ্রমণ করবেন। কূটনীতিকগণ পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে অনুমতি গ্রহণ করে পার্বত্য চট্টগ্রাম ভ্রমণ করবেন।’

এতে আরো বলা হয়েছিলো- ‘কোন দেশী-বিদেশী ব্যক্তি/সংস্থা কর্তৃক পার্বত্য অঞ্চলে জাতিসত্তাগুলোর সাথে সাক্ষাত কিংবা বৈঠক করতে চাইলে স্থানীয় প্রশাসন এবং সেনাবাহিনী/বিজিবি এর উপস্থিতি নিশ্চিত করতে হবে।’

উক্ত নির্দেশনা জারির পর ব্যাপক প্রতিক্রিয়া দেখা দেওয়ায় সরকারের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রণালয় আবরো নতুন করে এই নির্দেশনাটি জারি করলো।
——————–

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.