মশাল মিছিলে পুলিশের হামলা ও গ্রেফতারের প্রতিবাদে প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠনগুলোর বিক্ষোভ

0
41

ঢাকা।। গতকাল শুক্রবার লেখক মুশতাক আহমেদকে কারাগারে হত্যার প্রতিবাদে আয়োজিত মশাল মিছিলে পুলিশের হামলা ও নেতা-কর্মী গ্রেফতারের প্রতিবাদে আজ শনিবার (২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১) দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠনগুলো।

ছাত্র সংগঠনগুলোর নেতা-কর্মী ও সমর্থকরা দুপুর ১২টায় রাজু ভাস্কর্য থেকে মিছিল বের করেন। তারা মিছিল নিয়ে শাহবাগ মোড়ে এসে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করেন।

বাংলাদেশ ছাত্র ফেডারেশনের সভাপতি গোলাম মোস্তফা’র সঞ্চালনায় উক্ত সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ছাত্র ফ্রন্টের সভাপতি আল কাদেরী জয়।

সমাবেশে পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ, বিপ্লবী ছাত্র মৈত্রী, দুই ছাত্র ফেডারেশন, দুই ছাত্র ফ্রন্ট, ছাত্র ইউনিয়ন, ছাত্র গণমঞ্চ, বিপ্লবী ছাত্র যুব আনন্দোলনের নেতাকর্মীসহ বিভিন্ন নারী ও যুব সংগঠন এবং নানান শ্রেণি-পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।

আল কাদেরী বলেন, গতকাল আমাদের শান্তিপূর্ণ মশাল মিছিলে পুলিশের হামলায় ৩০ থেকে ৪০ জন আহত হয়েছেন। বিনা উসকানিতে আমাদের সাতজন নেতা-কর্মীকে পুলিশ আটক করেছে। আমরা অবিলম্বে তাঁদের মুক্তি দাবি করছি। তাঁদের মুক্তি না দেওয়া হলে ছাত্ররা বসে থাকব না। আমরা বৃহত্তর আন্দোলন গড়ে তুলব।

আল কাদেরী আরও বলেন, লেখক মুশতাক আহমেদের কারাগারে নির্মম হত্যাকাণ্ডের বিচার, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে আটক থাকা ব্যক্তিদের মুক্তি ও আইনটি বাতিলের দাবি জানাচ্ছি আমরা। এসব দাবিতে আগামী সোমবার (১ মার্চ) সারা দেশে বিক্ষোভ হবে। ঢাকায় সেদিন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ঘেরাও করব আমরা। এতেও দাবি আদায় না হলে শুধু মন্ত্রণালয় নয়, গণভবন ও বঙ্গভবন ঘেরাও করব আমরা।’

উল্লেখ্য, গতকাল শুক্রবার সন্ধ্যায় মশাল মিছিল করতে গেলে শাহবাগে মিছিলকারী ছাত্রসংগঠনগুলোর নেতা-কর্মীদের উপর পুলিশ হামলা চালায়। এতে ৩০ থেকে ৪০ জন আহত হন এবং পুলিশ ৭ জনকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারকৃতরা হলেন- তামজিদ হায়দার, নজির আমিন চৌধুরী জয়, এস এম তানজিমুর রহমান, মো. আকিব আহম্মেদ (ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মুহসীন হলের আবাসিক ছাত্র), মো. আরাফাত সাদ, নাজিফা জান্নাত ও জয়তী চক্রবর্তী।

এদিকে উক্ত ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে শাহবাগ থানায় একটি মামলা করেছে। মামলায় প্রগতিশীল ছাত্রসংগঠনগুলোর সাত নেতা-কর্মীর নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা ১০০ থেকে ১৫০ জনকে আসামি করা হয়েছে।

 


সিএইচটি নিউজে প্রকাশিত প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ,ভিডিও, কনটেন্ট ব্যবহার করতে হলে কপিরাইট আইন অনুসরণ করে ব্যবহার করুন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.