মহান মে দিবস উপলক্ষে পাহাড়ি শ্রমিক সমাজের ব্যানারে চট্টগ্রামে মিছিল ও সামবেশ অনুষ্ঠিত

0
1
চট্টগ্রাম প্রতিনিধি
সিএইচটিনিউজ.কম
মহান মে দিবস উপলক্ষে ‘পাহাড়ি শ্রমিক সমাজ’-এর ব্যানারে পার্বত্য চট্টগ্রাম থেকে কর্মরত শ্রমিকরা আজ ১ মে বুধবার সকালে চট্টগ্রামের শেরশাহ এলাকায় এক মিছিল ও সমাবেশের আয়োজন করেছে। রাজপথ প্রদক্ষিণ করার পরে মিছিলটি শেরশাহ ‘মুক্তি মিনারে’র সামনে এক সসামবেশের আয়োজন করে। সামবেশে বক্তব্য রাখেন শ্রমিক নেতা অর্পন চাকমা, অতীশ চাকমা, প্রয়াস চাকমা, রনজিচাকমা ও মিঠুন চাকমা।সমাবেশে বক্তারা বলেন, শ্রমিকদের দাবি দাওয়া নিয়ে আন্দোলনের জন্য বিখ্যাত ১৮৮৬ সালের হে মার্কেটের আন্দোলনের ১২৭ বছর পেরোলেও শ্রমিক সমাজ এখনো তাদের ন্যায্য অধিকার পায়নি। বাংলাদেশের শ্রমিক জনসাধারণ এখনো বেঁচে থাকা ন্যূনতম অধিকার শিক্ষা-চিকিৎসা-বাসস্থান-অন্ন-বস্ত্রের সুবিধা থেকে বঞ্চিত। কর্মক্ষেত্রে শ্রমিকদের নিরাপত্তা নেই।
বক্তারা গত ২৪ এপ্রিল সাভারের রানা প্লাজার ৯ তলা বিল্ডিঙ ধ্বসে পড়ার উদাহরণ টেনে বলেন, এই ঘটনার মাধ্যমেই প্রমাণিত হয় যে, শাসকশ্রেনী শ্রমিকদের নিরাপত্তা দিতে আন্তরিক নয়। বক্তারা দেশের সকল শ্রমিক সমাজকে তাদের দাবিদাওয়া ও মৌলিক অধিকার আদায়ের জন্য সচেতন হতে আহ্বান জানান। একমাত্র লড়াই সংগ্রাম করেই শ্রমিকজনগণ অধিকার পেতে পারে বলে মত প্রকাশ করেন।
বক্তারা নিপীড়িত জাতি-শ্রমিক-কৃষক-পেশাজীবি জনগণকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে লড়াইয়ে শামিল হওয়ার জন্য আহ্বান জানান।
সমাবেশে নিম্নোক্ত দাবিনামা উত্থাপন করা হয়-
১. শিক্ষা-চিকি
সা-অন্ন-বস্ত্র-বাসস্থানসহ সকল মৌলিক অধিকার নিশ্চিত করতে হবে।বেঁচে থাকার জন্য পর্যাপ্ত মজুরী প্রদান করতে হবে।
২. শ্রমিকদের জীবনের নিরাপত্তা দিতে হবে। শ্রমিকদের জীবন নিয়ে ছিনিমিনি খেলা চলবে না, বন্ধ কর। সাভারে ক্ষতিগ্রস্ত শ্রমিক ও শ্রমিক পরিবারদের ক্ষতিপূরণ দিতে হবে।
৩. নারী শ্রমিকদের উপর হয়রানী বন্ধ করতে হবে।
৪. ভিন্ন জাতিসত্তার শ্রমিকদের জাতিগতভাবে হেয় করা চলবে না।
 শ্রমিকদের অকথ্যভাষায় গালিগালাজ করা যাবে না। শ্রমিকদের মানবোচিত মর্যাদা দিতে হবে।
৫. পার্বত্য চট্টগ্রাম থেকে আগত জুম্ম শ্রমিকদের সামাজিক-সাংস্কৃতিক স্বাতন্ত্রের স্বীকৃতি দিতে হবে। জাতিগত স্বাতন্ত্র্য রক্ষার অধিকার দিতে হবে।
৬. ঐতিহ্যবাহী উ
সব বৈসাবি (বৈসু-সাংগ্রাই-বিজু) উপলক্ষে পার্বত্য চট্টগ্রামের শ্রমিক সমাজের জন্য ৩ দিনের ছুটি ঘোষনা করতে হবে। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.