মাটিরাঙ্গায় দুই বাঙালি কিশোরীকে গণধর্ষণ : আটক ৩

0
0

সিএইচটিনিউজ.কম
Raped4মাটিরাঙ্গা:
খাগড়াছড়ির মাটিরাঙ্গায় দুই বাঙালি কিশোরীকে গণধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। মাটিরাঙ্গা উপজেলাধীন আমতলী ইউনিয়নের জাফর পাড়া এলাকায় এ ঘটনাটি ঘটে। এ ঘটনায় পুলিশ তিন ধর্ষককে আটক করেছে।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার দিকে আমতলী ইউনিয়নের এক ব্যক্তি স্ত্রীকে নিয়ে তাদের ৮ম শ্রেণীতে পড়ুয়া মেয়েকে ৬ষ্ঠ শ্রেণীতে পড়ুয়া ফুফাতো বোনের সঙ্গে রেখে ওয়াজ মাহফিলে যান। রাতে খাওয়া শেষে কিশোরীরা ঘুমিয়ে পড়লে রাত আনুমানিক সাড়ে ১১টার দিকে কয়েকজন ডাকাডাকি করতে থাকে। এ সময় তারা পানি খেতে চাইলে কিশোরীরা তাদেরকে পানি দেওয়ার জন্য দরজা খুললে এলাকার চিহ্নিত বখাটে চার যুবক তাদের ঘরে প্রবেশ করে দরজা বন্ধ করে দেয়।

পরে চার বখাটে যুবক কিশোরীদের পরিহিত জামা-কাপড় জোরপুর্বক খুলে তাদেরকে ধর্ষণ করে। রাত দুইটার দিকে তাদের মা-বাবা বাড়িতে আসলে পেছনের দরজা দিয়ে চার বখাটে যুবক পালিয়ে যায়। পরে ঘটনাটি জানাজানি হলে স্থানীয়ভাবে মীমাংসার চেষ্টা করেন স্থানীয় নেতৃবৃন্দ। দফায় দফায় সামাজিকভাবে নিস্পত্তির চেষ্টা করা হলেও ঘটনাটি নিস্পত্তি হয়নি।

স্থানীয়ভাবে বিষয়টি নিস্পত্তি না হওয়ায় ঘটনার দুই দিন পর গতকাল শনিবার বিকালে গণধর্ষণেরর শিকার হওয়া এক কিশোরী বাদী হয়ে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে চার বখাটে যুবক আমতলীর হারুন হেডম্যান পাড়ার হামিদ আলীর ছেলে মো: মামুন মিয়া (২০), ফজল মিয়ার ছেলে আহাম্মদ আলী (১৯), আবদুল জলিলের ছেলে মো: জামাল হোসেন (২৫) ও মনু মিয়ার ছেলে মো: জালাল মিয়ার বিরুদ্ধে মাটিরাঙ্গা থানায় মামলা দায়ের করেছে। মাটিরাঙ্গা থানার মামলা নং-৯, তারিখ-২৮/০৬/২০১৪ইং। এ ঘটনায় মাটিরাঙ্গা থানা পুলিশ অভিযুক্ত তিন যুবককে গ্রেফতার করেছে।

মাটিরাঙ্গা থানার অফিসার ইনচার্জ মো: মাইন উদ্দিন খান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, নারী ও শিশু নির্যাতনের অভিযোগে আটক তিন যুবককে রবিবার সকালে খাগড়াছড়ি আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

সূত্র: সিটিজি টাইমস
————-

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.