মিঠুন চাকমার ১ম মৃত্যুবার্ষিকীতে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে পিসিপি’র স্মরণসভা ও প্রদীপ প্রজ্জ্বলন

0
4

চবি প্রতিনিধি :  ইউপিডিএফ সংগঠক ও সাবেক পিসিপি সভাপতি মিঠুন চাকমার ১ম মৃত্যুবার্ষিকীতে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে স্মরণসভা ও প্রদীপ প্রজ্জ্বলন করেছে বৃহত্তর পার্বত্য চট্টগ্রাম পাহাড়ি ছাত্র পরিষদ(পিসিপি)-চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ও মহানগর শাখা।

বৃহস্পতিবার (৩ জানুয়ারি ২০১৯) বিকাল ৪ টার সময় চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে স্মরণসভা অনুষ্ঠিত হয়। সভার শুরুতে নিপীড়িত জাতির অধিকার আদায়ের লড়াইয়ে শহীদ মিঠুন চাকমাসহ সকল শহীদদের স্মরণে দাঁড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়।

পিসিপি’র চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সহ-সভাপতি রিংকু চাকমার সভাপতিত্বে ও রোনাল চাকমার সঞ্চালনায় উক্ত স্মরণসভায় বক্তব্য রাখেন, সংগঠনটির মহানগর শাখার সাধারণ সম্পাদক অমিত চাকমা, বিশ্ববিদ্যালয় শাখার তথ্য প্রচার সম্পাদক প্রসেনজিত ত্রিপুরা, দপ্তর সম্পাদক অর্পণ চাকমা, ত্রিরত্ন চাকমা, রহেল চাকমা, রাজু চাকমা এবং পিলক্ষ্মীছড়ি উপজেলার পিসিপি সভাপতি নয়ন চাকমা।

স্মরণসভায় বক্তারা বলেন, কিছু মৃত্যু পাহাড়ের চেয়ে ভারী, আর কিছু মৃত্যু বেলে হাঁসের পালকের চেয়েও হালকা। জনগণের জন্য মৃত্যুবরণ করা পাহাড়ের চেয়েও ভারী। আর নির্যাতনকারী, নিপীড়নকারীদের পক্ষ হয়ে মারা যা্ওয়া বেলে হাঁসের পালকের চেয়েও হালকা। মিঠুন চাকমা নিপীড়িত জনগণের অধিকার আদায়ের লড়াইয়ে শহীদ হয়েছেন। তাই তাঁর মৃত্যু পাহাড়ের চেয়েও ভারী। তাঁর মৃত্যুতে দায়িত্বের বোঝাটা আরো ভারী হয়ে পড়েছে নতুন প্রজন্মের তরুণদের কাঁধে। মিঠুন চাকমার অসমাপ্ত কাজগুলো সমাপ্ত করে যাওয়াই হবে বর্তমান তরুণদের কর্তব্য।

বক্তারা মিঠুন চাকমার সংগ্রামী ও ত্যাগী জীবনের স্মৃতিচারণ করে বলেন, প্রাচ্যর অক্সফোর্ড খ্যাত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাষাবিজ্ঞান বিভাগে ভালো ফলাফল করেও ব্যক্তিগত স্বার্থ বিসর্জন দিয়ে জাতির মুক্তির সংগ্রামে একাত্ম হতে ইউপিডিএফ-এ যোগ দেন মিঠুন চাকমা। তাঁর মত ত্যাগী ও আদর্শবান নেতার সান্নিধ্য পাওয়া সত্যিই গৌরবের।

সভা শেষে শহীদ মিঠুন চাকমার স্মরণে প্রদীপ প্রজ্জ্বলন করে আবারো দাঁড়িয়ে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়।

উল্লেখ্য, ২০১৮ সালের ৩ জানুয়ারি সেনাসৃষ্ট নব্যমুখোশ-সংস্কারবাদী জেএসএস সন্ত্রাসী কর্তৃক হত্যার শিকার হন মিঠুন চাকমা। সন্ত্রাসীরা তাকে দিন দুপুরে নিজ বাড়ির এলাকা থেকে তুলে নিয়ে অর্ধেক রাস্তায় গুলি করে হত্যা করে ফেলে রেখে যায়।
——————-
সিএইচটি নিউজ ডটকম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.