রাঙামাটিতে সেনাবাহিনী কর্তৃক নয়জন নিরীহ জুম্ম নির্যাতনের শিকার

0
0
রাঙামাটি প্রতিনিধি
সিএইচটিনিউজ.কম

রাঙামাটি : গত ৩০ মে ২০১৩ সকাল সাড়ে এগারটায় শুভলং আর্মি ক্যাম্পের সেনাসদস্যরা রাঙ্গামাটি সদর উপজেলার বসন্তপাড়া লিচুবাগান এলাকায় নিরীহ জুম্ম গ্রামবাসীদের ডেকে নিয়ে এক জায়গায় জড়ো করে শারীরিক নির্যাতন চালিয়েছে। এতে কমপক্ষে ১০জন নিরীহ জুম্ম গ্রামবাসী মারাত্মক আহত হয়। পিসিজেএসএস ও ফেসবুক স্টেটাসের মাধ্যমে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

এসব সূত্র থেকে জানা যায়, কালপতি চাকমা নামক এক ব্যক্তির নামে সেনাবাহিনীর কাছে সন্ত্রাসী কার্যকলাপে জড়িত থাকার অভিযোগ থাকার কথা বলে দুপুরের দিকে শুভলং সেনা ক্যাম্পের একদল সেনা সদস্য জুম্মদের গ্রামে গিয়ে গ্রামবাসীদের ডেকে এনে এক জায়গায় জড়ো করে জিঙ্গাসাবাদ শুরু করে। এ ঘটনায় গ্রামবাসীরা আতঙ্কিত হয়ে পড়ে। কিছু বুঝে উঠার আগেই গ্রামের লোকজনকে ধরে সেনা সদস্যরা এলোপাথারি মারধর শুরু করে। এ সময়ে সেনা সদস্যদের নির্যাতনে কমপক্ষে ১০ জন নিরীহ গ্রামবাসী মারাত্মক আহত হয়। এলাকাবাসীরা সেনাবাহিনীকে জানায় যে, তাদের গ্রামে কালপতি চাকমা নামে কেউ নেই। তবে কালোবাদি চাকমা নামের একজন আছে। পরে সেনা সদস্যরা কালোবাদি চাকমার বাড়িতে গিয়ে তল্লাশি চালায়। এ সময়ে বাড়িতে কেউ ছিল না। প্রত্যক্ষদর্শী জানান, সেনা সদস্যরা তল্লাশির নামে কালোবাদি চাকমার ঘরের আসবাবপত্র ব্যাপক ভাঙচুর চালায়।

সেনাবাহিনীর নির্যাতনে আহত নিরীহ গ্রামবাসীরা হল:

১. লক্ষী কুমার চাকমা(২৭) পিতা: মৃত: ফুলেশ্বর চাকমা, গ্রাম: ইন্দ্র মনি পাড়া, ৮ নং ওয়ার্ড, রাঙ্গামাটি সদর উপজেলা,রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা,২. আনন্দ চাকমা(৩৬) পিতা: মৃত: পাত্থর চন্দ্র চাকমাগ্রাম: ঐ ৩. শান্তি বিকাশ চাকমা(২৮) পিতা: সুবল চন্দ্র চাকমাগ্রাম: ঐ ৪. কনক বরণ চাকমা(২৫) পিতা: ফরা চাকমা গ্রাম: ঐ, ৫. সূর্য চাকমা(২৮) পিতা: মৃত পাগলা চাকমা গ্রাম: ঐ, ৬. রবি চন্দ্র চাকমা(৩৬) পিতা: মৃত: মনুরাম চাকমা, গ্রাম: ঐ  ৭. বন কুমার চাকমা(৩০), পিতা: মৃত পাত্থর মনি চাকমা, গ্রাম: জারলছাড়ি, ১ নং ওয়ার্ড , রাঙ্গামাটি সদর উপজেলা, ৮. সত্য জ্যোতি চাকমা(৩৬)  পিতা: বাইথে চাকমা, গ্রাম: চংড়াছড়ি, বন্দুকভাঙ্গা রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা। তিনি ওই গ্রামে বেড়াতে গিয়েছিলেন। ৯. অনিল চাকমা(৩০) গ্রাম পুলিশ সদস্য পিতা: দফাদার চাকমা, গ্রাম: কাইন্দা মুখ পাড়া, রাঙ্গামাটি সদর।
—–

 


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.