রাঙামাটিতে সেনাবাহিনী কর্তৃক এক ব্যক্তিকে গুলি করে হত্যা!

0
696

রাঙামাটি ।। রাঙামাটি সদর উপজেলার ২নং মগবান ইউনিয়নে কথিত বন্দুকযুদ্ধের নাটক সাজিয়ে মিল্টন চাকমা (৪৮) নামে এক ব্যক্তিকে বিচার বহির্ভুতভাবে গুলি করে হত্যা করেছে সেনাবাহিনী।

জানা যায়, গতকাল রবিবার (১৩ ডিসেম্বর ২০২০) রাত ৭:৩০ টার সময় রাঙামাটি সদর উপজেলার  মগবান ইউনিয়নের ৩নং ওর্য়াডের ধনপাতা গ্রামের মিল্টন চাকমাকে তার নিজ বাড়ি থেকে সেনাবাহিনী ও তাদের মদদপুষ্ট সন্ত্রাসীরা ধরে নিয়ে যায়।

এরপর জীবতলী ইউনিয়নের বাজ্যাতলী ব্রীজে নিয়ে অমানবিকভাবে নির্যাতনের পর রাত ১১ টায় সেনাবাহিনীর সদস্যরা তাকে ঠান্ডা মাথায় ব্রাশ ফায়ার করে হত্যা করে বন্দুকযুদ্ধের নাটক সাজায়। এ সময় সেনা সদস্যরা কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলিও ছোঁড়ে বলে স্থানীয়রা জানান।

নিহত মিল্টন চাকমা রাঙামাটি সদর উপজেলার বন্দুকভাঙা ইউনিয়নের মগপাড়া গ্রামের মৃত সুরেশ মনি চাকমা (লেডট্যাং) ছেলে। তিনি মগবান ইউনিয়নের প্রেজুছড়া গ্রাম থেকে বিবাহ করেন। সেই সুত্র ধরে তিনি প্রেজুছড়ায় বসবাস করে আসছেন।

তিনি এক সময় জনসংহতি সমিতির গ্রাম কমিটিতে সহ-সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করলেও বর্তমানে তিনি স্বাভাবিক জীবন-যাপন করছিলেন বলে জানা গেছে।

মিল্টন চাকমাকে হত্যার পর আজ সোমবার ভোরে বাজ্যাতলী গ্রাম হতে ঝর্ণা চাকমা, শুভ লাল চাকমা, অমর জীব চাকমা ও কাজলা চাকমাকে ডেকে নিয়ে “নিহত ব্যক্তি সেনা সদস্যদের কাছ থেকে অস্ত্র কেড়ে নিতে চেয়েছিল” মর্মে তাদেরকে সাক্ষী করে জোরপূর্বক স্বাক্ষর নেয়া হয় বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। পরে লাশটি জীবতলী সেনা ক্যাম্পে নেয়ার পর পুলিশে হস্তান্তর করা হয়।

কোতোয়ালী থানার ওসি কবির হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে নিহতের লাশ ময়না তদন্তের জন্য রাঙামাটি সদর জেনারেল হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন।

 


সিএইচটি নিউজে প্রকাশিত/প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ,ভিডিও, কনটেন্ট ব্যবহার করতে হলে কপিরাইট আইন অনুসরণ করে ব্যবহার করুন।

Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.