রামগড়ে সেটলার কর্তৃক পাহাড়ি কিশোরীকে গণধর্ষণের ঘটনায় হিল উইমেন্স ফেডারেশনের নিন্দা ও প্রতিবাদ

0
0

খাগড়াছড়ি: হিল উইমেন্স ফেডারেশনের খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সভাপতি দ্বিতীয়া চাকমা ও সাধারণ সম্পাদক চৈতালি চাকমা আজ ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৭, সোমবার সংবাদ মাধ্যমে প্রদত্ত এক বিবৃতিতে খাগড়াছড়ির রামগড় উপজেলার রুপাইছড়ি গ্রামে সেটলার মো: হাসান আলী ও তার সহযোগীদের কর্তৃক ১৫ বছর বয়সী এক পাহাড়ি(ত্রিপুরা) কিশোরীকে গণধর্ষণের ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন।

ninda-protibadবিবৃতিতে নেতৃদ্বয় অভিযোগ করে বলেন, গত বুধবার (১৫ ফেব্রুয়ারি) রাত সাড়ে ১১টার দিকে প্রাকৃতিক কাজ ছাড়ার জন্য ঘরের বাইরে গেলে আগে থেকে ওঁৎপেতে থাকা মো: হাসান আলী ও তার সহযোগীরা মিলে হায়নার মত মুখে গামছা পেঁচিয়ে ওই কিশোরীকে জোরপূর্বক তুলে নিয়ে যায় এবং পার্শ¦বর্তী জঙ্গলে দুই রাত এক দিন পর্যন্ত আটকে রেখে পালাক্রমে ধর্ষণ করে।

নেতৃদ্বয় ভিকটিম কিশোরীর অভিযোগ তুলে ধরে বলেন, এর আগেও মো: হাসান আলী বহুবার ওই কিশোরীকে নানা ধরণের কু-প্রস্তাব দিতো ও উত্যক্ত করতো। কু-প্রস্তাবে কোন ছাড়া না পাওয়ায় এক প্রকার প্রতিশোধ পরায়ন হয়ে সেদিন কিশোরীকে রাতের আঁধারে নিজ বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে সহযোগীসহ মিলে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেছে।

বিবৃতিতে নেতৃদ্বয় বলেন, পার্বত্য চট্টগ্রামের পাহাড়ি নারীদের উপর সেটলার, রাষ্ট্রীয় বাহিনী কর্তৃক চলছে প্রতিনিয়ত ধর্ষণ, খুন, গুম, নির্যাতন ও অপহরণের মত ঘটনা। কিন্তু সংঘটিত এসব ঘটনার সুষ্ঠু বিচার না হওয়ায় অপরাধীরা বার বার এমন ঘটনা ঘটিয়ে চলেছে। তারা এসব কার্যকলাপকে পাহাড়িদের উপর জাতিগত নিপীড়ন বলে অখ্যায়িত করেন।

বিবৃতিতে তাঁরা পার্বত্য চট্টগ্রামের পাহাড়ি নারীদের উপর সেটলার ও রাষ্ট্রীয় বাহিনী কর্তৃক যৌন সহিংসতা রোধ করার জন্য যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণসহ অবিলম্বে রামগড়ে কিশোরীকে ধর্ষণকারী মো: হাসান আলী ও তার সহযোগীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।
——————-

সিএইচটি নিউজ ডটকম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.