লক্ষ্মীছড়িতে বোরকা পার্টির সন্ত্রাসী কর্মকান্ড বন্ধের দাবিতে এলাকাবাসীর স্মারকলিপি

0
1

সিএইচটিনিউজ.কম
Laxmichariলক্ষ্মীছড়ি: খাগড়াছড়ি জেলার লক্ষ্মীছড়িতে সেনা-সন্তু মদদপুষ্ট বোরকা পার্টির সন্ত্রাসী কর্মকান্ড বন্ধের দাবিতে এলাকাবাসী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবরে স্মারকলিপি দিয়েছে।

আজ ২৪ আগস্ট রবিবার সকালে উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে দুই শতাধিক লোক স্মারকলিপি দেওয়ার উদ্দেশ্যে যতীন্দ্র কার্বারী পাড়া থেকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ের উদ্দেশ্যে রওনা দেয়। যাবার পথে শিলাছড়িতে গিয়ে পৌঁছলে সেখানে সেনাবাহিনী তাঁদেরকে বাধা দেয়। এ সময় সেনারা ‘তাদের কাছ থেকে প্রোগ্রামের অনুমতি নেওয়া হয়নি, উপজেলা সদরে গেলে বোরকা পার্টির সাথে মারামারি হবে’ ইত্যাদি অজুহাতে লোকজনকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কার্যালয়ে যেতে বারণ করে।

পরে এলাকাবাসীর পক্ষে বর্মাছড়ি ইউনিয়নের প্রাক্তন চেয়ারম্যান স্বপন চাকমা, বিমল চাকমা ও থুইঅং মারমার নেতত্বে ১২ জন প্রতিনিধি গিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবরে স্মারকলিপি দেন।

স্মারকলিপিতে তারা অবিলম্বে বোরকা পার্টির সন্ত্রাসী কর্মকান্ড বন্ধে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি জানান।

উল্লেখ্য, দীর্ঘদিন ধরে সেনাবাহিনী ও জেএসএস সন্তু গ্রুপের প্রত্যক্ষ মদদে বোরকা পার্টির সন্ত্রাসীরা লক্ষীছড়ি ও মানিকছড়িতে অপহরণ, খুন, মুক্তিপণ আদায়, চাঁদাবাজি সহ বিভিন্ন অপকর্ম চালিয়ে যাচ্ছে। শুধুমাত্র লক্ষীছড়ি উপজেলায় এ যাবত তাদের কর্তৃক কমপক্ষে ৩৭ জনকে অপহরণ, ২ জনকে হত্যা ও কয়েক লক্ষ টাকা মুক্তিপণ আদায় করা হয়েছে। সর্বশেষ গত ২২ আগস্ট শুক্রবার সকালে সেনা জোনের পার্শ্ববর্তী শিলাছড়ি থেকে কালা মোহন চাকমার ছেলে মোটর সাইকেল চালক নিরোধ চাকমা(৩৪) ও মংসাথোয়াই মারমার ছেলে গণতান্ত্রিক যুব ফোরামের সদস্য অংসিলা মারমাকে(২২) অপহরণ করে প্রত্যেকে ১০ হাজার টাকা মু্ক্তিপণ দেয়ার শর্তে তাদের ছেড়ে দেয়।

বোরকা পার্টির সন্ত্রাসীরা প্রকাশ্যে নানা অপকর্ম করলেও তাদের বিরুদ্ধে প্রশাসন কোন পদক্ষেপ গ্রহণ না করায় তারা বেপরোয়াভাবে এসব সন্ত্রাসী কর্মকান্ড সংঘটিত করতে সাহস পাচ্ছে বলে এলাকাবাসী অভিযোগ করেছেন।
————–

সিএইচটিনিউজ.কম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.