৯ এপ্রিল স্ব স্ব জাতিসত্তার পোশাক পরিধানের আহ্বান ৫ নারী সংগঠনের

0
2

নিজস্ব প্রতিনিধি।। পার্বত্য চট্টগ্রামের আন্দোলনরত ৫ নারী সংগঠন হিল উইমেন্স ফেডারেশন, নারী আত্মরক্ষা কমিটি, পার্বত্য চট্টগ্রাম নারী সংঘ, সাজেক নারী সমাজ ও ঘিলাছড়ি নারী নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি আগামী ০৯ এপ্রিল ২০১৭, রবিবার  স্কুল-কলেজ, অফিস-আদালত, হাটবাজারসহ সর্বত্র স্ব স্ব জাতিসত্তার পোশাক পরিধানের মাধ্যমে নিজেদের স্বতন্ত্র জাতিসত্তার পরিচিত তুলে ধরার আহ্বান জানিয়েছে।

5 women org leaflet1এ লক্ষ্যে ৫ নারী সংগঠনের প্রকাশিত প্রচারপত্রে বলা হয়,‘একটি জাতিকে চেনা যায় তার নারীদের পোশাক দিয়ে। কারণ নারীরা হচ্ছে সংস্কৃতির ধারক ও বাহক।  পুরুষদের পোশাক দেখে বোঝার উপায় নেই।  আমরা যে পোশাক পরি, তার মাধ্যমে আমরা স্ব স্ব জাতিসত্তার প্রতিনিধিত্ব করি। ’

প্রচারপত্রে আরো বলা হয়, ‘আমাদের পোশাকেরও রয়েছে বিশেষ বৈশিষ্ট্য।  উজ্জ্বল রঙ, বুনন কৌশল আর কারুকার্য নক্সার কারণে আমাদের পোশাক অন্যদের মনোযোগ আকর্ষণ করে থাকে। আমরা যে ‘বাঙালি’ নই তা আমাদের পোশাকই প্রমাণ দেয়।’

প্রচাপত্রে আগামী ৯ এপ্রিল স্ব স্ব জাতিসত্তার পোশাক পরিধান করার আহ্বান জানিয়ে বলা হয়, ‘আমাদের পার্বত্য চট্টগ্রামে যে তীব্র দমন-পীড়ন চলছে এ পরিস্থিতে নারীদেরও নিজেদের নিরাপত্তা ও সম্ভ্রম রক্ষা তথা জাতিসত্তার স্বীকৃতি ও অধিকার অর্জনের জন্য রাজপথে নামা জরুরি কর্তব্য হয়ে দাঁড়িয়েছে।  আমরা যদি ন্যূনতম প্রতিবাদও জানাতে না পারি, তাহলে আমাদের জাতি হিসেবে স্বতন্ত্রভাবে টিকে থাকার কোন যোগ্যতা নেই।  পাঁচ নারী সংগঠন স্ব স্ব জাতীয় পোশাক পরিধানের মাধ্যমে নিজেদের স্বতন্ত্র জাতিসত্তার তুলে ধরার কর্মসূচিতে যুক্ত হওয়ার জন্য সবাইকে আহ্বান জানাচ্ছে।!’

প্রচারপত্রে বলা হয়, ‘জাতীয় পরিচিতিহীন অধিকারহীন মানবেতর অবস্থার প্রতিবাদে পাঁচ নারী সংগঠন নিজেদের স্বাতন্ত্র্য পরিচিতি তুলে ধরার লক্ষ্যে মহান ঐতিহ্যবাহী বৈসাবি’র প্রাক্কালে স্ব স্ব জাতীয় পোশাক পরিধানের কর্মসূচি গ্রহণ করেছে।  এ অতি সহজ ও সাধারণ কর্মসূচিতে যেকোনো নারী (শিক্ষার্থী- পেশাজীবি, বা শিক্ষিত-অশিক্ষিত-ধনী-গরিব) সামিল হতে পারেন, এতে যুক্ত হওয়া জরুরি কর্তব্য।  যারা তা করতে সক্ষম হবে না, বা এর সমালোচনা বা বিরোধীতা করবেন, জনগণ নিসন্দেহে তাদের ভিন্ন চোখে দেখবে।’

5 women org leaflet2প্রচারপত্রে আহ্বান জানিয়ে বলা হয়:

আগামী ৯ এপ্রিল স্কুল-কলেজ, হাট-বাজার, অফিস-আদালতসহ সর্বত্র স্ব স্ব জাতিসত্তার নিজস্ব পোশাক পরিধান করুন।

নিজ জাতিসত্তার স্বাতন্ত্র্য উর্দ্ধে তুলে ধরতে সাধ্যমত ভূমিকা রাখুন।

অপসংস্কৃতির বিরুদ্ধে সজাগ থাকুন, তথাকথিত ফ্যাশান বা আধুনিকতার নামে গা ভাসিয়ে দেবেন না।

নিজ ভাষা বিকৃত করবেন না, বিকৃত উচ্চারণে কথা বলবেন না, যারা তা করে তাদের বিরত রাখুন।

বাণিজ্যিক উদ্দেশ্যে নির্মিত ভারতীয় চ্যানেল ম্যাগা সিরিয়ালের নায়ক-নায়িকাদের পোশাক-পরিচ্চদ অনুকরণ করবেন না। অনুসরণকারীদের এড়িয়ে চলুন।

বৈসাবি উসবে হিন্দি-বাংলা সিনেমা-সঙ্গীত বাজাবেন না, নিজেদের সঙ্গীত, নৃত্য ও অনুষ্ঠানের মাধ্যমে সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য তুলে ধরুন

বৈসাবি উসবে সমস্ত ধরনের কৃত্রিম বিনোদন, বাহুল্য ও বিত্ত-বৈভব জাহির বর্জন করুন, নিজস্ব জাতিসত্তার ঐতিহ্যবাহী খাবার পরিবেশন করুন।

এতে আগামী ৯ এপ্রিল স্ব স্ব জাতিসত্তার পোশাক পরিধান কর্মসূচিতে স্বতঃস্ফুর্তভাবে অংশ নিয়ে কর্মসূচি সফল করার আহ্বান জানানো হয়েছে।

উল্লেখ্য, গত ৩০ মার্চ ২০১৭ খাগড়াছড়ি সদরের স্বনির্ভর বাজারে অবস্থিত ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট(ইউপিডিএফ)-এর জেলা কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে ৫ নারী সংগঠন স্ব স্ব জাতিসত্তার পোশাক পরিধানের এই কর্মসূচি ঘোষণা করে।
———————-

সিএইচটি নিউজ ডটকম’র প্রচারিত কোন সংবাদ, তথ্য, ছবি ব্যবহারের প্রয়োজন দেখা দিলে যথাযথ সূত্র উল্লেখপূর্বক ব্যবহার করুন।


Print Friendly, PDF & Email

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.